৩ কার্তিক  ১৪২৬  সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সুকুমার সরকার, ঢাকা: বড়সড় জঙ্গি হামলা থেকে রক্ষা পেল ঢাকা। ওসামা বিন লাদেন ঘনিষ্ঠা জঙ্গিনেতাকে গ্রেপ্তার করা হল। ধৃত মোল্লা ওমর এবং ওসামা বিন লাদেনের অতি ঘনিষ্ঠ বাংলাদেশের হরকাতুল জিহাদের নতুন নেতা আতিকুল্লাহ এবং তার সহযোগী বোরহান উদ্দিন রাব্বানি। সূত্রের খবর, ঢাকায় নাশকতার ছক ছিল বলেই জেরায় স্বীকার করে নিয়েছে ধৃতেরা।

[আরও পড়ুন: অমানবিক! খাবারে চুল থাকায় স্ত্রীকে নেড়া করল স্বামী]

ঢাকা মহানগর পুলিশের অপরাধ, তথ্য ও প্রসিকিউশন বিভাগ সূত্রে খবর, আতিকুল্লাহ স্বীকার করেছে সে ১৯৯২ সালে মায়ানমারে যায়। রোহিঙ্গাদের সশস্ত্র দলে যোগ দিয়ে যুদ্ধ করে। ১৯৯৭ সালে সে পাকিস্তান থেকে আফগানিস্তানে যায়। সেখানেও সশস্ত্র দলে যোগ দিয়ে যুদ্ধ করে। মোল্লা ওমর এবং ওসামা বিন লাদেনের সঙ্গেও দেখা করে। আতিকুল্লাহ দীর্ঘদিন দুবাইয়ে পলাতক ছিল। এরপর আবার বাংলাদেশে চলে আসে। সেখানে তাদের সংগঠনের পুরনো সদস্য বোরহান উদ্দিন ও নাজিম উদ্দিন-সহ বেশ কয়েকজনের সঙ্গে যোগাযোগ করে নতুন সদস্য সংগ্রহে মন দেয়।  এভাবেই সংগঠনের জন্য দীর্ঘদিন কাজ করে যাচ্ছিল সে।

[আরও পড়ুন: ছ’মাসে বাংলাদেশে ধর্ষণের শিকার ৪৯৬ জন শিশু! সমীক্ষা রিপোর্টে চাঞ্চল্য]

৩ অক্টোবর রাতে ঢাকার নিকুঞ্জ এলাকায় একটি মসজিদের মাঠে অভিযান চালিয়ে আতিকুল্লাহ, বোরহান উদ্দিন ও মহম্মদ নিজাম উদ্দিন ওরফে শামিমকে গ্রেপ্তার করা হয়। ওইদিনই তিনজনকে চার দিনের হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে পুলিশ। চার দিনের হেফাজত শেষে ধৃত জঙ্গিদের আদালতে হাজির করেন মামলার তদন্তকারী আধিকারিক মহম্মদ কামরুজ্জামান। সূত্রের খবর, ঠিক সেই সময়ই আতিকুল্লাহ ও বোরহান উদ্দিন নিজেদের অপরাধ স্বীকার করে নিয়েছে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং