BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বাঁকুড়ায় শক্তি বাড়াচ্ছে শাসকদল, বাম-বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগ ২০০০ কর্মীর

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 15, 2020 10:26 pm|    Updated: June 15, 2020 10:34 pm

An Images

টিটুন মল্লিক, বাঁকুড়া: লকডাউনের মাঝেও বাঁকুড়ায় ক্রমশ শক্তি বাড়াচ্ছে শাসকদল। একের পর এক বাম-বিজেপির কর্মী-সমর্থকরা হাতে তুলে নিচ্ছেন তৃণমূলের ঝান্ডা। সোমবারও বিজেপি (BJP) ও সিপিএম (CPM) ছেড়ে বহু কর্মী-সমর্থক যোগ দিয়েছেন তৃণমূলে। আর এই দলবদলের হিড়িকেই হারানো জমি পুনরুদ্ধারের স্বপ্ন দেখছে শাসকদল।

সোমবার বাঁকুড়া জেলার ওন্দা বিধানসভার অন্তর্গত কল্যাণী অঞ্চলের লেদাসন গ্রামে দলীয় কার্যালয় উদ্বোধনের জন্য একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সেখানে উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রী শ্যামল সাঁতরা ও বাঁকুড়া জেলার তৃণমূল সভাপতি শুভাশিষ বটব্যাল, ওন্দার বিধায়ক অরূপ খাঁ, ওন্দার ব্লক সভাপতি অশোক চট্টোপাধ্যায়, ওন্দা ব্লকের দাপুটে তৃণমূল নেতা যুব সভাপতি শচিন পাত্র-সহ অন্যান্য নেতারা। এদিনের অনুষ্ঠানেই বিজেপি ও সিপিএমের প্রায় ৫০০ পরিবারের ২০০০ কর্মী-সমর্থক যোগ দিলেন তৃণমূলে। আসন্ন নির্বাচনের মুখে নতুন সদস্যদের যোগদানে খুশি তৃণমূল।

tmc-2

[আরও পড়ুন: রাজ্যে প্রতিদিনই বাড়ছে সুস্থ হওয়ার হার, তবে সংক্রমণের হাত থেকে স্বস্তি পাচ্ছে না কলকাতা]

দলে যোগদান প্রসঙ্গে মন্ত্রী শ্যামল সাঁতরা (Shyamal Santra) বলেন, “অসময়ে নির্বাচিত বিজেপি সাংসদদের পাশে পাওয়া যায় না তা মানুষ বুঝেছেন। পাশপাশি, উপকার যে কেবলমাত্র মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) হাত ধরে পাওয়া যায় সেটাও মানুষ বুঝে গিয়েছে। সেই কারণেই ২ হাজার মানুষ সিপিএম ও বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিলেন।” জেলা সভাপতি শুভাশিস বটব্যাল বলেন, আমফান কিংবা মানুষের দুর্দিনে কেবলমাত্র মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) একমাত্র ভরসা। যদিও এ ব্যাপারে এখনও পর্যন্ত বিজেপির তরফ থেকে কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি। প্রসঙ্গত, এই প্রথম নয় বিষ্ণুপুর সাংগঠনিক জেলার সোনামুখীতে বিজেপি, সিপিএম ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন প্রায় আড়াই হাজার কর্মী।  

[আরও পড়ুন: উলটপুরাণ! বাংলায় ভরসা নেই, হায়দরাবাদেই কাজে ফিরছেন শ্রমিকরা]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement