BREAKING NEWS

২৬ শ্রাবণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ১১ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনার বলি ২৫ জন, একলাফে সংক্রমিতের সংখ্যা প্রায় ২৪ হাজার

Published by: Sulaya Singha |    Posted: July 7, 2020 8:26 pm|    Updated: July 7, 2020 8:35 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আনলক টু দফায় রাজ্যজুড়ে প্রতিদিনই লাফিয়ে বাড়ছে করোনা ভাইরাসে (Coronavirus) আক্রান্তের সংখ্যা। সুস্থতার হার চোখে পড়ার মতো হলেও কোনওভাবেই বাগে আনা যাচ্ছে না সংক্রমণ। আর ঠিক এই কারণেই মঙ্গলবার নতুন করে কনটেনমেন্ট জোনে সম্পূর্ণ লকডাউন করার সিদ্ধান্ত নেয় নবান্ন। জানিয়ে দেওয়া হয়, ৯ জুলাই বিকেল ৫টা থেকে রাজ্যের সমস্ত সংক্রমক এলাকায় জারি থাকবে লকডাউন। এই ঘোষণার পরই এল স্বাস্থ্যদপ্তরের করোনা সংক্রান্ত মেডিক্যাল বুলেটিন। এদিনের দেওয়া পরিসংখ্যানেই স্পষ্ট হয়ে গেল কেন, ফের কড়া লকডাউনের পথে হাঁটল প্রশাসন। কারণ গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলায় নতুন করে আক্রান্ত সাড়ে ৮০০ জন।

এদিন রাজ্যের স্বাস্থ্যদপ্তরের তরফে প্রকাশিত পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৮৫০ জন। তার মধ্যে শুধু কলকাতাতেই সংক্রমণ ছড়িয়েছে ২৯১ জনের মধ্যে। ফলে সংক্রমিতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ২৩ হাজার ৮৩৭-এ। তিলোত্তমায় মারণ ভাইরাস থাবা বসিয়েছে মোট ৭ হাজার ৬৮০ জনের শরীরে। পাল্লা দিয়ে বাড়ছে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যাও। সেই গণ্ডিও ৭০০০ পার। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে অ্যাকটিভ কেস ৭ হাজার ২৪৩। 

[আরও পড়ুন: রাজ্যের সব কনটেনমেন্ট জোনে ৯ জুলাই থেকে Full Lockdown, কী কী বন্ধ থাকছে জানুন]

সংক্রমণের পাশাপাশি গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতের সংখ্যাতেও রেকর্ড বৃদ্ধি ঘটেছে। একদিনে রাজ্যে মৃত্যু হয়েছে ২৫ জনের। যা এখনও পর্যন্ত সর্বোচ্চ। যার মধ্যে তিলোত্তমায় এই মারণ ভাইরাস (Coronavirus) প্রাণ নিয়েছে দশজনের। বাংলায় করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা ৮০৪ জন।

এ রাজ্যে সুস্থতার হার ভাল হলেও গত দুদিনে তার কিন্তু সামান্য নিম্নমুখী। বর্তমানে রাজ্যে সুস্থতার হার ৬৬.২৪ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা যুদ্ধে জয়ী হয়েছেন ৫৫৫ জন। এখনও পর্যন্ত করোনাকে জয় করে সুস্থ হয়ে ফিরেছেন ১৫ হাজার ৭৯০ জন। তবে করোনা রোগী চিহ্নিত করার জন্য উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে নমুনা টেস্টের সংখ্যাও। স্বাস্থ্যদপ্তরের তথ্য বলছে, একদিনে ১০ হাজার ১৩০টি স্যাম্পেল টেস্ট হয়েছে। মোট ৫ লক্ষ ৬২ হাজার ১৩৭টি টেস্ট ইতিমধ্যেই হয়েছে।

[আরও পড়ুন: আবেদনে সাড়া, করোনা ভ্যাকসিনের মানব পরীক্ষার জন্য ডাক পেলেন দুর্গাপুরের শিক্ষক]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement