BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘দেশকে লুট করতে চোর এসেছে চৌকিদারের বেশে’, মোদিকে কটাক্ষ অভিষেকের

Published by: Sayani Sen |    Posted: April 23, 2019 9:54 pm|    Updated: April 23, 2019 9:54 pm

An Images

সুরজিৎ দেব, ডায়মন্ড হারবার: “দেশকে লুট করতে চোর এসেছে, চৌকিদারের বেশে। সাবধান হোন। উৎসবের মেজাজে ভোট দিন আর চোরেদের দেশছাড়া করুন।” ঠিক এই ভাষাতেই মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আক্রমণ করলেন রাজ্য তৃণমূল যুব কংগ্রেস সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন মথুরাপুর লোকসভা কেন্দ্রের মন্দিরবাজারের বিজয়গঞ্জে বীরেশ্বরপুর কলেজ মাঠে তৃণমূল প্রার্থী চৌধুরী মোহন জাটুয়ার সমর্থনে প্রচারে এসে এই মন্তব্য করেন তিনি।

[ আরও পড়ুন: দার্জিলিংয়ে তৃণমূলের সমর্থনে লড়ছেন বিনয় তামাং, ১৯ মে বিধানসভা উপভোট]

এদিন তৃণমূল যুব সভাপতি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও কেন্দ্রের বিজেপি সরকারকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেন। মথুরাপুর কেন্দ্রের ভোটারদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, “গত পাঁচ বছর ধরে মোদি সরকার জিএসটি, নোটবন্দি, আচ্ছে দিনের নাম করে আপনাদের কোপ মেরেছে। এবার সময় এসেছে। আপনারা ওদের এমন কোপ মারুন যাতে মোদির কোমর ভাঙে। তিন দফা ভোট হয়ে গিয়েছে। ইতিমধ্যেই এরাজ্যে তৃণমূল কংগ্রেস ১০-০ তে এগিয়ে গিয়েছে। আগামী ২৩ মে বিজেপির পরলোক গমন হবে।” তৃণমলের যুব নেতা আরও বলেন, “রাম আমারও প্রভু। আমিও পুজো করি তাঁকে। কিন্তু রাজনৈতিক স্বার্থে রামকে ব্যবহার করি না।”

তারপরই তিনি চেঁচিয়ে বলে ওঠেন, “জয় শ্রীরাম, ২৩ মে’র পর এ বাংলার মাটিতে বিজেপির থাকবে না আর কোনও নাম। তাই ১৯ মে উৎসবের মেজাজে আপনারা ভোট দিন আর বিজেপির নরখাদকদের জবাব দিন।’’ সভায় উপস্থিত শ্রোতাদের সামনে প্রশ্ন ছুঁড়ে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “যে প্রধানমন্ত্রী শহিদ সেনা জওয়ানদের নামে ভোট চায়, তাকে কি আপনারা ভোট দেবেন? নীরব মোদি, ললিত মোদি, চোর, ছ্যাঁচড় সকলেই বলছে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নরেন্দ্র মোদিকে চাই। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীও বলছেন, নরেন্দ্র মোদিকে চাই। আসলে দেশকে লুট করতে চোর এসেছে চৌকিদারের বেশে। সাবধান হোন। এদের দেশছাড়া করুন। এরা রাম মন্দির বানানোর নামে মানুষকে বোকা বানাচ্ছে আর দিল্লির বুকে ফাইভ স্টার পার্টি অফিস তৈরি করেছে।” ABHISHEK

[ আরও পড়ুন: নিখোঁজ রহস্য উদ্ঘাটনে মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ দাবি নোডাল অফিসারের স্ত্রীর]

এদিন সিপিএমকেও তুলোধনা করেন তিনি। বলেন, “চৌত্রিশ বছর তো এ রাজ্যে ক্ষমতায় ছিলে। মানুষের জন্যে কী করেছো? এখন বড় বড় কথা বলতে লজ্জা করে না?” এরপরই তৃণমূল সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের কথা জানিয়ে যুব তৃণমূলের রাজ্য সভাপতি বলেন, “জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত তৃণমূল কংগ্রেসই আপনার সঙ্গে, আপনার পাশে আছে এবং থাকবে। তাই সিপিএম, কংগ্রেসকে ভোট দিয়ে আপনার মূল্যবান ভোট নষ্ট না করবেন না। তৃণমূলকে ভোট দিন। এটা ভারতের অস্তিত্বের লড়াই। ভারতের জোকার পার্টিকে বিদায় করুন। ২৩ মে’র পর ওদের পরলোক গমন হবে।” এদিন সভায় প্রার্থী চৌধুরী মোহন জাটুয়া ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি  শুভাশিস চক্রবর্তী, রায়দিঘির বিধায়ক দেবশ্রী রায়, জেলার যুব সভাপতি শওকত মোল্লা ও কুলপির বিধায়ক যোগরঞ্জন হালদার।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement