BREAKING NEWS

২৭ আষাঢ়  ১৪২৭  রবিবার ১২ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

ফের রাজনৈতিক মহলে করোনার থাবা, এবার আক্রান্ত বারাসতের বিদায়ী পুরপ্রধান

Published by: Sayani Sen |    Posted: June 30, 2020 10:30 am|    Updated: June 30, 2020 10:48 am

An Images

ব্রতদীপ ভট্টাচার্য, বারাসত: রাজনৈতিক মহলে ইতিমধ্যেই থাবা বসিয়েছে মারণ করোনা ভাইরাস (Coronavirus)। বহু নেতাই কোভিড ১৯ আক্রান্ত হয়েছেন। এবার সেই তালিকায় নাম জুড়ল বারাসতের বিদায়ী পুরপ্রধানেরও। মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভরতি হতে হল তাঁকে।

পরিবার সূত্রে খবর, গত তিনদিন ধরেই জ্বরে ভুগছিলেন বারাসতের বিদায়ী পুরপ্রধান। সকলের সন্দেহ হয়েছিল হয়তো তাঁর শরীরেও বাসা বেঁধেছে করোনা ভাইরাস। সেই অনুযায়ী তাঁর কোভিড পরীক্ষা করানো হয়। সোমবার বিকেলে রিপোর্ট হাতে আসে। তাতেই দেখা যায় তিনি করোনা আক্রান্ত। বারাসতের বিদায়ী বোর্ডের পুরপ্রধান রিপোর্ট হাতে আসার পর এক মুহূর্ত সময়ও নষ্ট করা হয়নি। তড়িঘড়ি তাঁকে বেলেঘাটা আইডি হাসপাতালে (Beleghata ID Hospital) ভরতি করা হয়। সেখানেই ভরতি রয়েছেন তিনি। আপাতত বারাসতের বিদায়ী পুরপ্রধানের শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল বলেই জানা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন: মেয়ের সম্মান বাঁচাতে গিয়ে খুন মা, বাগনানের ঘটনায় অভিযুক্তদের শাস্তি চেয়ে ডেপুটেশন এবিভিপির]

উত্তর ২৪ পরগনার রাজনৈতিক মহলে এর আগেও একাধিকবার থাবা বসিয়েছে মারণ ভাইরাস। আক্রান্ত হয়েছেন উত্তর ২৪ পরগনার জেলা পরিষদের সহ সভাপতি, পানিহাটির বিধায়ক নির্মল ঘোষ, মধ্যমগ্রামের কাউন্সিলর-সহ আরও অনেকেই। এছাড়াও রাজ্যের দমকলমন্ত্রী সুজিত বসুও করোনা আক্রান্ত হয়েছিলেন। তবে বর্তমানে তিনি সুস্থ রয়েছেন। আবার ফলতার বিধায়ক তমোনাশ ঘোষের প্রাণহানিও হয়েছে। আনলক ওয়ানের (Unlock 1) পর থেকে জেলায় আক্রান্তের সংখ্যাও বাড়ছে। রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের সোমবারের মেডিক্যাল বুলেটিন অনুযায়ী, এই জেলায় এখনও পর্যন্ত মোট ২ হাজার ৭৯৮ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। তাঁদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১ হাজার ৬৩৫ জন। মৃত্যু হয়েছে ৯৯ জনের। তাই বারবার বিশেষ সাবধানতা অবলম্বনের পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: বাস সমস্যায় এবার কড়া প্রশাসন, রাস্তায় না নামালে টার্মিনাসে রাখা যাবে না বাস]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement