৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

কনটেনমেন্ট জোনেও চায়ের দোকানে আড্ডা! বাধা দিতে গিয়ে আক্রান্ত পুলিশ

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: May 12, 2020 5:47 pm|    Updated: May 12, 2020 5:50 pm

An Images

দেবব্রত মণ্ডল, বারুইপুর: কনটেনমেন্ট জোন বারুইপুরের আটঘরায় চায়ের দোকানে চলছিল আড্ডা! খবর পেয়ে সেখানে হাজির হয় পুলিশ। কিন্তু উর্দিকে ভয় পাওয়া তো দূর, উলটে পুলিশ আধিকারিকদের বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠল স্থানীয়দের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, পুলিশ এলাকায় ঢুকতেই পুলিশকে লক্ষ্য করে শুরু হয় ইট বৃষ্টি। গাড়ি থেকে তাঁদের নামিয়ে চলে এলোপাথাড়ি মার। ঘটনার জেরে আহত হয়েছেন ৫ পুলিশকর্মী।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে খবর, দক্ষিণ ২৪ পরগনার বারুইপুরের আটঘরা এলাকাটিকে কনটেনমেন্ট জোন ঘোষণা করেছে সরকার। স্বাভাবিকভাবেই সেখানে কোনও দোকান খোলাই নিষিদ্ধ। অভিযোগ, এই ঘোষণার তোয়াক্কা না করেই বিভিন্ন এলাকায় চায়ের দোকান খুলে চলছিল আড্ডা। কার্যত স্বাভাবিক জীবনযাপন করছিলেন কম বেশি সকলেই। মঙ্গলবার এই খবর কানে যেতেই এলাকায় হাজির হয় পুলিশ। পুলিশের গাড়ি এলাকায় ঢুকতেই তাঁদের লক্ষ্য করে ইট, ভাঙা কাঠের টুকরো, সোডার বোতল-সহ বিভিন্ন জিনিস ছুঁড়তে শুরু করেন স্থানীয়রা। এরপরই টেনে হিঁচড়ে গাড়ি থেকে নামানো হয় পুলিশ আধিকারিকদের। রাস্তার ফেলে চলে বেধড়ক মার। প্রাণে বাঁচাতে স্থানীয় একটি বাড়িতে আশ্রয় নেয় পুলিশ। খবর পেয়ে বারুইপুর থানা থেকে বিশাল পুলিশবাহিনী ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার করে আক্রান্তদের।  

[আরও পড়ুন: ফকির ডেকে গ্রাম বাঁধিয়েও রোখা গেল না সংক্রমণ! গোপালনগরে করোনা আক্রান্ত যুবক]

সূত্রের খবর, আক্রান্ত ৫ পুলিশকর্মী বারুইপুর মহকুমা হাসপাতাল ভরতি। ইতিমধ্যে এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ১৮ জনকে গ্রেপ্তার করেছে বারুইপুর থানার পুলিশ। শুরু হয়েছে তদন্ত।মহামারি রুখতে লকডাউন ঘোষণার পর পুলিশ আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা এই প্রথম নয়। এর আগে জীবনতলায় এবং ভাঙড়ে একাধিকবার আক্রান্ত হয়েছেন পুলিশকর্মীরা। এবার সেই ঘটনার পুনরাবৃত্তি বারুইপুরে।

ছবি: বিশ্বজিৎ নস্কর

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement