BREAKING NEWS

১৭ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শনিবার ৪ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ফের বোমাবাজি আমডাঙায়, নতুন করে তাজা বোমা উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: August 30, 2018 11:09 am|    Updated: August 30, 2018 11:09 am

Fresh incident of bomb hurled at Amdanga

ছবি: প্রতীকী

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: থমথমে আমডাঙায় ফের অশান্তি৷ পুলিশের উপস্থিতি উপেক্ষা করেই সাতসকালে  চলল বোমাবাজি৷ স্থানীয়দের অভিযোগ, বৃহস্পতিবার দিনের আলো ফুটতেই আমডাঙার বহিচগাছিতে একদল দুষ্কৃতী বেশ কয়েকটি বোমা ফাটিয়ে চম্পট দেয়৷ তবে, এদিনের এই বোমার আঘাতে হতাহতের কোনও খবর পাওয়া না গেলেও এলাকায় নতুন করে আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে৷

[দাম্পত্য কলহের জের, নদিয়ায় স্বামীকে খুন করে আত্মঘাতী গৃহবধূ]

এদিন সাতসকালে বোমাবাজির খবর পেয়ে নড়েচড়ে বসে পুলিশ৷ বহিচগাছি গ্রামে পুলিশ ঢুকে তল্লাশি অভিযানে নামে৷ বুধবার ২০০টির বেশি তাজার বোমার উদ্ধারের পর আজ ফের ওই একই এলাকা থেকে উদ্ধার হয় আরও বোমা৷ দফায় দফায় এলাকায় সংঘর্ষের জেরে কার্যত গৃহবন্দি বাসিন্দারা৷ পুরুষশূন্য গোটা গ্রাম৷ নতুন করে অশান্তির আশঙ্কায় গোটা আমডাঙাজুড়ে চলছে অঘোষিত বনধ৷ বন্ধ এলাকার সব দোকান-বাজার৷ ঘরছাড়া বহু মানুষ৷ এখনও স্পষ্ট এলাকার সংঘর্ষের ছাপ৷ এলোমেলো বাড়িঘর, লন্ডভন্ড দোকান-বাজার৷ উঠোনে ছড়িয়ে ছিটিয়ে গৃহস্থলীর সরঞ্জাম৷ ইতিমধ্যেই এলাকার সমস্ত স্কুল বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে জেলা প্রশাসন৷ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এলাকায় মোতায়েন রয়েছে বিশাল পুলিশবাহিনী৷ এলাকায় পুলিশ থাকলেও কীভাবে দুষ্কৃতীরা বোমা ছুড়ে পালাল, প্রশ্ন তুলছেন আতঙ্কিত আমডাঙার বাসিন্দাদের একাংশ৷ তাঁদের দাবি, অবিলম্বে অভিযুক্তদের ধরে উপযুক্ত ব্যবস্থা নিক প্রকাশ৷ ফিরে আসুক এলাকার শান্তি৷

[বাড়িওয়ালার বেধড়ক মারে ঘরছাড়া ‘মাতৃসম’ ভাড়াটে]

এত পুলিশি নিরাপত্তা থাকা সত্ত্বেও কেন আয়ত্তে আনা যাচ্ছে না পরিস্থিতি? পুলিশের নজর এড়িয়ে কীভাবে বিপুল পরিমাণ বোমা এলাকায় মজুত রাখা হল? এলাকায় অশান্তির আঁচ কী আগে থেকে জানা ছিল না পুলিশের? অভিযোগ স্থানীয়দের৷  তবে, এলাকায় বোমা উদ্ধারের ঘটনায় চড়তে শুরু করেছে পারদ৷ বাংলাদেশ থেকে চোরাপথে একে ৪৭-র মতো আগ্নেয়াস্ত্র এনে বোমা-গুলি নিয়ে তৃণমূল কর্মীদের উপর হামলা চালানোর অভিযোগ তুলেছেন খোদ রাজ্যের খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক৷ সীমান্তে বিএসএফ ওই সমস্ত পাচারকারীকে মদত দিচ্ছে বলেও অভিযোগ তোলেন মন্ত্রী৷ জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের সমস্ত অভিযোগ খারিজ করা হয়েছে বিএসএফের তরফে৷

অন্যদিকে, মন্ত্রীর অভিযোগের পরই বুধবার এলাকায় বিশাল বাহিনী নিয়ে গিয়ে গ্রামজুড়ে তল্লাশি চালান খোদ আইজি দক্ষিণবঙ্গ নীরজকুমার সিং। এলাকা থেকে ২০০-র বেশি বোমা উদ্ধার হয়েছে বলে জানান আইজি দক্ষিণবঙ্গ৷ ঘটনার জেরে আমডাঙার ওসি মানস দাসকে সরিয়ে তুষার বিশ্বাসকে দায়িত্বে আনা হয়েছে৷ দুই তৃণমূল কর্মী খুনের ঘটনায় সিপিএম জেলা সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য-সহ ১০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাম শিবিরের দাবি, সংঘর্ষে সিপিএমেরও এক কর্মী নিহত হয়েছেন৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে