৩০ আষাঢ়  ১৪২৬  সোমবার ১৫ জুলাই ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এনআরএস কাণ্ডে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের চিকিৎসকদের হুমকিকে হাতিয়ার করে আসরে নেমে পড়েছেন রাজনীতিকরা৷ তারই মাঝে আবারও বিস্ফোরক মন্তব্য করে বিতর্কে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ শুক্রবার বীজপুরে কর্মিসভার মঞ্চ থেকে মমতা বলেন, ‘আমি যখন উত্তরপ্রদেশ, বিহার, পাঞ্জাবে যাই, তখন সেখানের ভাষায় কথা বলি৷ বাংলায় থাকতে হলে, কথা বলতে হবে বাংলায়৷’ এই মন্তব্যের মাধ্যমে মুখ্যমন্ত্রী প্রাদেশিকতায় জোর দিচ্ছেন বলেই দাবি বিরোধীদের৷ একজন মুখ্যমন্ত্রী কীভাবে ভাষা বিভেদকে প্রাধান্য দিচ্ছেন, তা নিয়ে ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে জোর চর্চা৷

[ আরও পড়ুন: রাজনৈতিক খুন নাকি ব্যক্তিগত শত্রুতার শিকার, হাসনাবাদের ঘটনার বাড়ছে ধোঁয়াশা]

লোকসভা নির্বাচনের পর থেকে বহু নেতানেত্রীরা তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন৷ এই প্রসঙ্গে টেনে দলত্যাগীদের খোঁচা দিতে গিয়েও বিতর্ক উসকে দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তিনি বলেন, ‘‘যাঁদের চলে যাওয়ার তাঁরা চলে যান৷ এতে তৃণমূল দলটা শুদ্ধ হবে৷ এখনও দু’বছর আমাদের সরকার রয়েছে৷ গরীব ছেলেদের নিয়ে আসুন৷ আমার কাছে তাদের বায়োডাটা জমা দিন৷ অনেক চাকরি আছে৷ আমি ওদের চাকরি দেব৷’’ মুখ্যমন্ত্রীর এই মন্তব্যকে হাতিয়ার করে স্বজনপোষণের তত্ত্বকে সামনে আনছেন বিরোধীরা৷ রাজ্যের যোগ্যতাসম্পন্ন বেকার যুবক-যুবতী থাকা সত্ত্বেও কীভাবে প্রশাসনিক প্রধান দলীয় কর্মিসভায় এমন মন্তব্য করতে পারেন, তা নিয়েই উঠেছে সমালোচনার ঝড়৷

[ আরও পড়ুন: ‘উধাও’ ১১ জন কাউন্সিলর, বনগাঁ থানায় অভিযোগ দায়ের পুরপ্রধানের]

লোকসভা নির্বাচনের পর থেকে বাংলার পরিস্থিতির ক্রমশ অবনতি হচ্ছে৷ বাংলায় অশান্তির আবহ তৈরির চেষ্টা করা হচ্ছে৷ বীজপুরের কর্মিসভা থেকে এই ইস্যুতেই জোরালো সওয়াল করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ কর্মিসভার অধিকাংশ জুড়েই বারেবারে বিজেপিকে কড়া ভাষায় নিশানা করেন তিনি৷ নাম না করে গেরুয়া শিবিরকে কটাক্ষ করে মমতা বলেন, ‘‘ভোটের পরই শুরু হয়েছে সন্ত্রাস৷ কিছু অশুভ শক্তির নজর পড়েছে বাংলায়৷ সন্ত্রাসী, মৌল উগ্রপন্থী, অর্ধসত্যি, উন্মত্ত সন্ত্রাস শুরু হয়েছে৷ বাংলায় থাকব৷ বাইকে করে এসে গুন্ডামি করব আমরা শুনব না৷’’ পুলিশের ভূমিকা নিয়েও এদিনের মঞ্চ থেকে ক্ষোভ উগরে দেন তিনি৷ গেরুয়া শিবিরকে প্রতিরোধ করতে দলীয় কর্মীদের সংগঠন আরও মজবুত করে তোলার আহ্বান জানান মমতা৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং