BREAKING NEWS

২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৯  বুধবার ৭ ডিসেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মাল নদীর হড়পা বানে স্বজনহারাদের পাশে কেন্দ্র ও রাজ্য, আর্থিক সাহায্য ঘোষণা

Published by: Sayani Sen |    Posted: October 6, 2022 11:25 am|    Updated: October 6, 2022 4:38 pm

Narendra Modi and Mamata Banerjee declares help for deceased and injured in Malbazar । Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মালবাজারের মাল নদীতে হড়পা বানে মৃত্যুমিছিল। নিহত এবং আহতদের পরিবারের পাশে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার। নিহতদের পরিবারপিছু ২ লক্ষ টাকা এবং জখমদের চিকিৎসায় ৫০ হাজার টাকা আর্থিক সাহায্য ঘোষণা। বৃহস্পতিবার সকালে টুইটে আর্থিক সাহায্যের কথা জানানো হয়েছে।

বুধবার রাতে দুর্ঘটনার পরই শোকপ্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর থেকে টুইট করা হয়। টুইটে লেখা হয়, “জলপাইগুড়িতে প্রতিমা নিরঞ্জনের সময় দুর্ঘটনায় আমি ক্ষুব্ধ। দুর্ঘটনায় যাঁদের মৃত্যু হয়েছে তাঁদের পরিবারের প্রতি গভীর শোকপ্রকাশ করছি।”

[আরও পড়ুন: কমলেশ্বর বিতর্ক অতীত! দশমীতে সিপিএমের বইয়ের স্টলে হাজির তৃণমূল সাংসদ]

বৃহস্পতিবার সকালে ফের টুইট করে আর্থিক সাহায্যের কথা ঘোষণা করা হয়। প্রধানমন্ত্রী ত্রাণ তহবিল থেকে নিহতদের পরিবারপিছু ২ লক্ষ টাকা এবং জখমদের চিকিৎসা খাতে ৫০ হাজার টাকা আর্থিক সাহায্য ঘোষণা করা হয়েছে।

মালবাজারে হড়পা বানে প্রাণহানির ঘটনায় টুইটে শোকপ্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি টুইটে উল্লেখ করেন, এখনও পর্যন্ত ৮ জনের প্রাণহানি হয়েছে। জখম ১৩ জন হাসপাতালে ভরতি। অন্তত ৭০ জন মানুষকে রাতেই উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে। আর কেউ নিখোঁজ নন। নিহতদের পরিবারপিছু ২ লক্ষ এবং আহতদের চিকিৎসায় ৫০ হাজার টাকা আর্থিক সাহায্য ঘোষণা করা হয়েছে।

প্রশাসনের তরফে প্রকাশিত তালিকা অনুযায়ী মৃত আটজন হলেন – তপন অধিকারী (৭২), শুভাশিস রাহা (৬৩), রুমুর সাহা (৪২), বিভা দেবী (২৮), সুস্মিতা পোদ্দার (২২), স্বর্ণদেবী অধিকারী (২০), ঊর্মি সাহা (১৩), অংশ পণ্ডিত (৮)। বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী এখনও মাল নদীতে উদ্ধারকাজ চালিয়ে যাচ্ছে। তবে লাগাতার বৃষ্টির জেরে উদ্ধারকাজ মাঝে মাঝেই বাধা পাচ্ছে। বিপদগ্রস্তদের সুবিধায় দু’টি হেল্পলাইন নম্বর চালু করা হয়েছে। নম্বর দু’টি হল – ০৩৫৬১২৩০৭৮০ এবং ৯০৭৩৯৩৬৮১৫।

[আরও পড়ুন: ‘মহাষ্টমীর সন্ধিক্ষণে জন্মাক সন্তান’, তিথি মেনে প্রসবের বায়না সরকারি হাসপাতালেও]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে