BREAKING NEWS

২৬ শ্রাবণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ১১ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

রথের দিনই ভক্তদের জন্য খুলে যাচ্ছে তারাপীঠ মন্দির, জেনে নিন প্রবেশের নিয়ম

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 20, 2020 2:26 pm|    Updated: June 20, 2020 2:26 pm

An Images

নন্দন দত্ত, বীরভূম: দীর্ঘ আলোচনার পর অবশেষে রথের দিন থেকেই ভক্তদের জন্য তারাপীঠ (Tarapith) খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল মন্দির কমিটি। তবে কঠোরভাবে মানতে হবে সামাজিক দূরত্বের বিধি। আপাতত গর্ভগৃহে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না দর্শনার্থীদের।

করোনা সংক্রমণ রুখতে কয়েকমাস ধরেই বন্ধ রাজ্যের প্রায় সমস্ত মন্দির। পরবর্তীতে আনলক ওয়ানে একে একে খুলে দেওয়া হয়েছে বেশ কিছু মন্দির। কিন্তু তারাপীঠ মন্দির খোলা নিয়ে কিছুতেই সিদ্ধান্তে আসতে পারছিল না মন্দির কমিটি। এই পরিস্থিতিতে চলতি মাসের ১৪ তারিখ বৈঠকে বসেন মন্দির কমিটির সদস্যরা। সেখানে কেউ দাবি করেন, খুলে দেওয়া হোক তারাপীঠ মন্দির। কেউ আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেন, বেশিরভাগ ভক্ত তথা পর্যটকরা হাওড়া-কলকাতার হওয়ায় মন্দির খুললে সংক্রমণ বাড়বে। কেউ রথের দিনই মন্দির খোলার পরামর্শ দেন। কারও যুক্তি ছিল ১৭ জুন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর বৈঠক। সেখানে ফের পাঁচ রাজ্যে কড়া পদক্ষেপ নিতে পারে কেন্দ্র। তাই কিছুদিন অপেক্ষা করা হোক। এরপরই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে, ২০ জুন ফের বৈঠকে বসবে সেবায়িত কমিটি, সেখানেই ঠিক হবে মন্দির খোলার দিন।

tarapith

[আরও পড়ুন: পেটের দায়ে কাঁকড়া ধরাই কাল, পীরখালির জঙ্গলে নৌকা থেকে মৎস্যজীবীকে টেনে নিয়ে গেল বাঘ]

পরিকল্পনামাফিক ২০ জুন অর্থাৎ শনিবার ফের বৈঠকে বসে মন্দির কমিটি। জানা গিয়েছ, সেখানেই সিদ্ধান্ত হয়েছে যে রথের দিন থেকেই ভক্তদের জন্য খুলে দেওয়া হবে মন্দির। তবে কঠোরভাবে পালন করা হবে সামাজিক দূরত্বের বিধি। গর্ভগৃহে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না কাউকে। দর্শনার্থীদের হয়ে পুজো দিয়ে আসবেন সেবায়িতরাই। ভোগের ক্ষেত্রেও মানা হবে সামাজিক দূরত্বের বিধি। পাশাপাশি, সংক্রমণের আশঙ্কার কারণেই এবছর রথের দিন তারা মাকে নিয়ে রথযাত্রা স্তগিত রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কমিটি। এ প্রসঙ্গে কমিটির তরফে জানানো হয়েছে যে, “ভক্তদের সঙ্গে মায়ের সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা হলেও মানসিক দূরত্ব থাকবে না। পরবর্তীতে পরিস্থিতিত বিবেচনা করে দর্শনার্থীদের গর্ভগৃহে প্রবেশের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।”

[আরও পড়ুন: ‘চিনা দ্রব্য ব্যবহারকারীর পা ভেঙে দিন’, নিদান বিজেপি নেতা জয় বন্দ্যোপাধ্যায়ের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement