BREAKING NEWS

২৮ শ্রাবণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১৩ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

আমফানের ত্রাণ নিয়ে বৈঠকের ভিডিও করায় গ্রেপ্তার ২ যুবক, প্রতিবাদে উত্তাল বনগাঁ

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: July 6, 2020 2:29 pm|    Updated: July 6, 2020 2:29 pm

An Images

জ্যোতি চক্রবর্তী, বনগাঁ: আমফানের (Amphan) ত্রাণে দু্র্নীতি নিয়ে বৈঠকে বসেছিল তৃণমূল নেতৃত্ব। সেই বৈঠকের ভিডিও করায় ২ যুবককে মারধর ও গ্রেপ্তারির ঘটনায় সোমবার উত্তপ্ত হয়ে উঠল বনগাঁর (Bangaon) গাইঘাটা। এদিন সকাল থেকেই দফায় দফায় ওই এলাকায় বিক্ষোভ দেখায় তৃণমূল ও বিজেপির কর্মী-সমর্থকরা। যার জেরে ভোগান্তির শিকার হন মানুষ। 

জানা গিয়েছে, রবিবার বনগাঁর আংরাইলের তৃণমূল পঞ্চায়েত সদস্য রামপ্রাসাদ ঘোষের বাড়িতে আমফানের ক্ষতিপূরণে স্বজনপোষণের অভিযোগ নিয়ে বৈঠক বসেছিল। সেই সময় স্থানীয় দুই যুবক সৌরভ বারুই ও সম্রাট বারুই মোবাইলে বৈঠকের ভিডিও করে। অভিযোগ, স্রেফ ভিডিও করার কারণে তাঁদেরকে বেধড়ক মারধর করা হয়। আটকে রাখা হয় মোটরবাইক। পরবর্তীতে অন্য একাধিক অভিযোগে তাঁদের তুলে দেওয়া হয় পুলিশের হাতে। এই ঘটনার প্রতিবাদে ও ওই যুবকদের ছেড়ে দেওয়ার দাবি জানিয়ে সোমবার সকালে বনগাঁর ঝাউডাঙ্গা রোড অবরোধ করে গ্রামবাসীরা। রাস্তায় গাছের গুড়ি ফেলে চলে বিক্ষোভ। তাতে শামিল হন বিজেপির নেতা-কর্মীরাও। পরিস্থিতি আয়ত্তে আনতে ঘটনাস্থলে যায় গাইঘাটা থানার পুলিশ। তাঁদের সামনেও চলে বিক্ষোভ।

Bangaon-agi-2

[আরও পড়ুন: দিনেদুপুরে ‘ভূতে’র উপদ্রব পুলিশকর্মীর বাড়িতেই! আতঙ্কে কাঁটা পরিবারের সদস্যরা]

এরই মাঝে বিজেপির বিরুদ্ধে তৃণমূলের অঞ্চল সভাপতি বাসুদেব ঘোষের বাড়িতে হামলার অভিযোগ তুলে আংরাইল বাজার এলাকায় অবরোধ শুরু করে শাসকদলের নেতা-কর্মীরা। আক্রান্ত অঞ্চল সভাপতি দাবি করেন যে, যে দুই যুবকের মুক্তির দাবি বিক্ষোভ চালাচ্ছে বিজেপি তারা হামলার ঘটনার জড়িত। অভিযোগ পালটা অভিযোগে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে এলাকা। দীর্ঘক্ষণ পর পুলিশের আশ্বাসে বিক্ষোভ তুলে নেয় দু’পক্ষই। এ বিষয়ে পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, ঘটনার নেপথ্যে কী তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। 

[আরও পড়ুন: শক্তিগড়ের সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টেকা গেল না, বন্ধের পথে মুখ্যমন্ত্রীর স্বপ্নের প্রকল্প ‘মিষ্টি হাব’]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement