BREAKING NEWS

২৯ চৈত্র  ১৪২৭  সোমবার ১২ এপ্রিল ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

West Bengal Assembly Elections: ভোটের আগের দিন শালবনিতে বিজেপি কর্মীর রহস্যমৃত্যু, খুনের অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: March 26, 2021 10:25 am|    Updated: March 26, 2021 1:38 pm

An Images

সম্যক খান, মেদিনীপুর: রাত পোহালেই বিধানসভা নির্বাচনের (West Bengal Assembly Elections) প্রথম দফার ৩০ টি আসনে ভোটগ্রহণ। তার মধ্যে রয়েছে শালবনি। নিরাপত্তা বলয়ে মুড়ে ফেলা হয়েছে এলাকা। এই পরিস্থিতিতে শুক্রবার সকালে শালবনির (Salbani) বাগমারি এলাকা থেকে উদ্ধার হল বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ। ঘটনার জেরে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে এলাকা। স্থানীয় বিজেপি নেতার অভিযোগ, তৃণমূলই খুন করে ঝুলিয়ে দিয়েছে ওই কর্মীকে।

জানা গিয়েছে, পশ্চিম মেদিনীপুরের শালবনির বাগমারি গ্রামের বাসিন্দা ওই  বিজেপি কর্মীর নাম অনন্ত সোরেন। শুক্রবার সকালে বাড়ির কিছুটা দূরে একটি জঙ্গলে মেলে তাঁর দেহ। খবর ছড়িয়ে পড়তেই উত্তেজনা ছড়ায় এলাকায়। ঘটনাস্থলে যায় বিশাল পুলিশ বাহিনী। দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়। স্থানীয় বিজেপি নেতাদের কথায়, “বেশ কিছুদিন ধরেই এলাকায় রীতিমতো সন্ত্রাস ছড়াচ্ছে তৃণমূল। বিভিন্ন জায়গায় বিজেপির পোস্টার ছিঁড়ে দিয়েছে। কার্যালয়ে ভাঙচুর চালিয়েছে।ওদের পায়ের নিচে মাটি নেই তাই এভাবে সাধারণ মানুষকে ভয় দেখাচ্ছে।”

[আরও পড়ুন: ভোটের মুখে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমণ, ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনা আক্রান্ত ৫১৬ জন]

পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত যুবককে আগে হুমকি দেওয়া হয়েছিল কি না, সে বিষয়ে পরিবারের তরফে এখনও কিছু জানা যায়নি। অভিযুক্তদের কঠোরতম শাস্তির দাবি জানিয়েছে মৃতের পরিবার ও বিজেপি। যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল। তাঁদের দাবি, পারিবারিক বিবাদের কারণেই আত্মঘাতী হয়েছেন ওই যুবক। উল্লেখ্য,  বৃহস্পতিবার সকালে শান্তিপুরের নৃসিংহপুরের মেথিডাঙার কলাবাগান থেকে দুই যুবকের দেহ উদ্ধার হয়েছিল। দু’জনেই বন্ধু অন্তপ্রাণ হিসেবে এলাকায় পরিচিত ছিল। বিজেপির (BJP) অভিযোগ, তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতী ওই দুই যুবককে খুন করেছে। এই ঘটনায় গতকাল সকাল থেকেই থানা ঘেরাও করে বিক্ষোভ দেখান গেরুয়া শিবিরের কর্মীরা। আজ অর্থাৎ শুক্রবার বিজেপির ডাকে ১২ ঘণ্টা বন্‌ধ চলছে শান্তিপুরে। 

আরও পড়ুন: তৃণমূল, বিজেপি নাকি সংযুক্ত মোর্চা? নদিয়ার সংখ্যালঘু অধ্যুষিত আসনগুলিতে এগিয়ে কারা?

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement