৯ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৬  শুক্রবার ২৪ মে ২০১৯ 

Menu Logo নির্বাচন ‘১৯ দেশের রায় LIVE রাজ্যের ফলাফল LIVE বিধানসভা নির্বাচনের রায় মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

রাজা দাস, বালুরঘাট: গভীর রাতে প্রেমিকার সঙ্গে কথা বলতে বলতেই আত্মঘাতী যুবক। সকালে বাড়ির কাছেই গাছ থেকে তাঁর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করল পুলিশ। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, তখনও মৃতের পকেটে মোবাইল ও কানে হেডফোন লাগানো ছিল। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে দক্ষিণ দিনাজপুরের বুনিয়াদপুরে। তদন্তে বংশীহারি থানার পুলিশ।

[আরও পড়ুন: বচসাকে কেন্দ্র করে বন্ধুর হাতে যুবক খুন, মহেশতলায় গ্রেপ্তার অভিযুক্ত]

মৃতের নাম শুভঙ্কর হালদার। বাড়ি, বুনিয়াদপুরের রসিদপুরে। পরিবারের লোকেরা জানিয়েছেন, দিল্লিতে শ্রমিকে কাজ করতেন শুভঙ্কর। দীর্ঘদিন ধরেই একটি মেয়ের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক ছিল তাঁর। প্রেমিকার বাড়ি জলপাইগুড়িতে। মৃতের বাড়ির লোকের বক্তব্য, ভোট দেওয়ার জন্য মাস খানেক আদে বাড়িতে এসেছিলেন শুভঙ্কর। সোমবার গভীর রাত পর্যন্ত নিজের ঘরে প্রেমিকার সঙ্গে ফোনে কথা বলছিলেন ওই যুবক। কথা বলতে কথা বলতে কখন যে তিনি বাড়ির থেকে বাইরে বেরিয়ে গিয়েছেন, তা টের পাননি কেউই। মঙ্গলবার সকালে বাড়ির কাছে একটি আমগাছে শুভঙ্কর হালদারের ঝুলন্ত দেহ দেখতে পান পরিবারের লোকেরা। ঘটনাটি জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠিয়েছে বংশীহারি থানার পুলিশ।

কিন্তু, প্রেমিকার সঙ্গে কথা বলতে বলতে কেন আত্মহত্যা করলেন শুভঙ্কর হালদার? ধন্দে পরিবারের লোকেরা। তাঁদের অনুমান, রাতে যখন ফোনে কথা বলছিলেন, তখন সম্ভবত কোনও বিষয়ে প্রেমিকার সঙ্গে শুভঙ্করের বচসা হয়। সেই কারণে বাড়ির বাইরে বেরিয়ে আত্মহত্যা করেছেন তিনি।

[আরও পড়ুন: শিলিগুড়িতে ২৪ কেজি সোনা-সহ গ্রেপ্তার মণিপুরের ৬ যুবক

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং