BREAKING NEWS

১৪ মাঘ  ১৪২৮  শুক্রবার ২৮ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

মাত্র এক সপ্তাহেই স্বস্তি, সেরে উঠলেন মহারাষ্ট্রের প্রথম ওমিক্রন রোগী

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: December 9, 2021 4:49 pm|    Updated: December 9, 2021 4:49 pm

Maharashtra’s first Omicron patient tests negative | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ওমিক্রন (Omicron) নিয়ে চিন্তিত গোটা বিশ্ব। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা WHO জানিয়েছে, ইতিমধ্যেই ৫৭টি দেশে সন্ধান মিলেছে ওমিক্রনের। দ্রুত গতিতে এই ভাইরাসের স্ট্রেন ছড়িয়ে পড়ছে। ভারতে ইতিমধ্যে ২৩ জন আক্রান্তের খোঁজ মিলেছে। এর মধ্যেই জানা গেল, এক সপ্তাহের মধ্যেই  মহারাষ্ট্রের প্রথম ওমিক্রন আক্রান্তের করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ এল।

বুধবারই মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) থানের বাসিন্দা বছর ৩৩-এর ওই যুবকের করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট আসে। তাতেই দেখা যায় তিনি সুস্থ হয়ে উঠেছেন। ইতিমধ্যে তাঁকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। তবে ওই ব্যক্তিকে এক সপ্তাহ গৃহবন্দি থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে চিকিৎসকদের তরফে।

[আরও পড়ুন: দেশে একদিনে করোনার কবলে প্রায় সাড়ে ৯ হাজার, ৫৭টি দেশে ছড়িয়ে পড়ল ওমিক্রন]

নভেম্বর মাসের শেষ সপ্তাহে দক্ষিণ আফ্রিকা (South Africa) থেকে দুবাই (Dubai) হয়ে ভারতে আসেন বছর ৩৩-এর মেরিন ইঞ্জিনিয়ার। ২৪ নভেম্বর দিল্লি বিমানবন্দরে তাঁর আরটি-পিসিআর পরীক্ষা করা হয়। সেখান থেকে তিনি ফের মুম্বইয়ের বিমানে ওঠেন। মুম্বই বিমানবন্দরে পৌঁছনোর পর দিল্লি বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ জানায়, যুবকের করোনা রিপোর্ট পজেটিভ এসেছে। এরপর তাঁর নমুনা সংগ্রহ করে জিনোম সিকোয়েন্সিংয়ের জন্য পাঠানো হয় ও তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তবে এক সপ্তাহের মধ্যেই তাঁর করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ এল। জন্মদিনে বাড়ি ফিরলেন তিনি। 

এদিকে দক্ষিণ আফ্রিকায় লাফিয়ে বাড়ছে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা। গত নভেম্বরে দক্ষিণ আফ্রিকাতেই প্রথম করোনা ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন-এ আক্রান্তের খোঁজ মিলেছিল। জানা গিয়েছে, সেদেশে দু’দিন অন্তর দ্বিগুণ হচ্ছে ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা। গোটা বিষয়ে উদ্বিগ্ন দক্ষিণ আফ্রিকা সরকার।

[আরও পড়ুন: গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে কমল করোনায় মৃত্যু, ‘ওমিক্রনে’র বিরুদ্ধে টিকাই হাতিয়ার, বলছে WHO]

প্রসঙ্গত, কড়া বিধিনিষেধ না মানলে এবং সতর্ক না হলে আগামী বছরের গোড়াতেই ফের মারাত্মক রূপ ধারণ করতে পারে করোনা, এমনই আশঙ্কা প্রকাশ করেছে IMA। তবে এই উদ্বেগের মধ্যে বুধবার বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO) জানিয়েছে, করোনার নয়া স্ট্রেন ওমিক্রনের বিরুদ্ধে শক্তিশালী হাতিয়ার হয়ে উঠবে ভ্যাকসিনই। ওমিক্রনের পক্ষে টিকার জোড়া ডোজের স্তর ভেদ করা কঠিন বলেই জানাচ্ছে WHO। একইসঙ্গে স্বস্তি দিচ্ছে দেশের নিম্নমুখী অ্যাকটিভ কেস।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে