২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  সোমবার ৮ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বিদ্যুতের বিল মেটাতে গিয়ে নিমেষে ফাঁকা অ্যাকাউন্ট! প্রতারিত অভিনেতা শান্তিলাল মুখোপাধ্যায়

Published by: Sayani Sen |    Posted: June 30, 2022 9:47 am|    Updated: June 30, 2022 9:47 am

Actor Shantilal Mukherjee faces cyber crime । Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভুয়ো লিংকে ক্লিক করায় অ্যাকাউন্ট নিমেষে ফাঁকা হয়ে যাওয়ার অভিযোগ নতুন নয়। যত দিন যাচ্ছে সাইবার জালিয়াতি যেন ক্রমশ বাড়ছে। সাধারণ মানুষকে বিপাকে ফেলতে নিত্যনতুন ফন্দি আঁটছে হ্যাকাররা। এবার প্রতারণার শিকার অভিনেতা শান্তিলাল মুখোপাধ্যায় (Shantilal Mukherjee)। মুহূর্তে অ্যাকাউন্ট থেকে প্রায় আড়াই লক্ষ টাকা উধাও হয়ে গেল তাঁর। সরশুনা থানা এবং লালবাজারের সাইবার সেলে অভিযোগ দায়ের করেছেন অভিনেতা। তবে এখনও পর্যন্ত তদন্তকারীদের জালে ধরা পড়েনি কেউ।

জানা গিয়েছে, গত ১৩ জুন অভিনেতার ব্যক্তিগত মোবাইল নম্বরে একটি এসএমএস আসে। যে এসএমএসে দাবি করা হয়, রাতের মধ্যে ইলেকট্রিক বিল জমা দিতে হবে। নইলে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হবে। ওই এসএমএস দেখে তড়িঘড়ি ইলেকট্রিক বিল মেটান অভিনেতা। তারপরই তাঁর কাছে অচেনা নম্বর থেকে একটি ফোন আসে। ফোনের অপর প্রান্ত থেকে পেমেন্ট আপডেট করার জন্য ১১ টাকা দিতে হবে বলে জানায়। একটি লিংকে ক্লিক করে ওই টাকা দেওয়ার কথা বলা হয়। সেই মতো অভিনেতা ওই লিংকে ক্লিক করেন। এরপরই অভিনেতা জানতে পারেন, তাঁর অ্যাকাউন্ট থেকে উধাও হয়ে গিয়েছে আড়াই লক্ষ টাকা।

[আরও পড়ুন: রেলের নিয়োগেও ‘দুর্নীতি’, কলকাতা হাই কোর্টে মামলা চাকরিপ্রার্থীর]

প্রতারণার শিকার যে তিনি হয়েছেন, তা বুঝতে আর বিশেষ বেগ পেতে হয়নি অভিনেতাকে। বাধ্য হয়ে পুলিশের দ্বারস্থ হন তিনি। সরশুনা থানা এবং লালবাজারের সাইবার সেলে অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগের প্রমাণ হিসাবে এসএমএস এবং ওই অচেনা নম্বর থেকে আসা ফোন সংক্রান্ত সমস্ত তথ্য পুলিশকর্তাদের জানিয়েছেন তিনি। তবে এখনও পর্যন্ত কেউই পুলিশের জালে ধরা পড়েনি।

সাইবার বিশেষজ্ঞদের দাবি, সম্প্রতি ইলেকট্রিক বিল মেটানোর অছিলায় সাধারণ মানুষকে ফাঁদে ফেলার চেষ্টায় প্রতারকরা। এভাবে বহু গ্রাহকের অ্যাকাউন্ট ফাঁকা করে দিচ্ছে হ্যাকাররা। তাই যেকোনও লিংকে ক্লিক না করার পরামর্শই দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। তাঁদের পরামর্শ –

  • কোথা থেকে এসএমএস এসেছে, তা ভালভাবে খতিয়ে দেখতে হবে।
  • বিদ্যুৎ বিভাগ থেকেই আদৌ মেসেজ এসেছে কিনা, তা যাচাই করতে হবে।
  • অফিশিয়াল অ্যাপের মাধ্যমে বিল মেটানোর চেষ্টা করুন।
  • কোনও ব্যক্তিগত নম্বর বা অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠাবেন না।
  • কোনও ব্যক্তিগত তথ্য শেয়ার করবেন না।

কষ্টার্জিত অর্থ হ্যাকারের কবজায় চলে যাওয়া আটকাতে আরও সাবধানী হওয়ার পরামর্শ সাইবার বিশেষজ্ঞদের।

[আরও পড়ুন: জিভে বাসা বেঁধেছিল ক্যানসার, নতুন জিভ লাগিয়ে নজির কলকাতার হাসপাতালের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে