BREAKING NEWS

৯ আষাঢ়  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২৪ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

টুইটার থেকে ‘বিতাড়িত’ কঙ্গনাকে স্বাগত জানাল Koo অ্যাপ

Published by: Arupkanti Bera |    Posted: May 5, 2021 10:12 pm|    Updated: May 5, 2021 10:12 pm

As Kangana Ranaut’s Twitter account was permanently suspended by Twitter she has been welcomed by the founders of Koo app । Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে লাগাতার বিষোদগার করে টুইটার থেকে কার্যত বিতাড়িত হয়েছেন অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউত (Kangana Ranaut)। টুইটারের নিয়ম ভঙ্গ করার জন্য তার অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। সেই সুযোগকে কাজে লাগাতে চাইছে ভারতীয় মাইক্রো ব্লগিং সাইট ‘কু’। কঙ্গনার পুরনো পোস্ট শেয়ার করে ‘নিজের ঘরে’ তাঁকে স্বাগত জানিয়েছেন কু অ্যাপের প্রতিষ্ঠাতা এবং সিইও অপ্রমেয় রাধাকৃষ্ণ।

এর আগে বাংলায় ভোটের ফলপ্রকাশের দিন টুইটারে বাংলাদেশী আর রোহিঙ্গাদের মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) সবচেয়ে বড় শক্তি হিসেবে ব্যাখ্যা করেছিলেন বি-টাউনের ‘কন্ট্রোভার্সি ক্যুইন’। শুধু তাই নয়, বাংলাকে কাশ্মীরের সঙ্গেও তুলনা করেন কঙ্গনা। টুইটারে কঙ্গনা লেখেন, “বাংলাদেশি আর রোহিঙ্গারা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সবচেয়ে বড় শক্তি…। যা ট্রেন্ড দেখছি তাতে বাংলায় আর হিন্দুরা মেজরিটিতে নেই এবং তথ্য অনুযায়ী গোটা ভারতবর্ষের তুলনায় বাংলার মুসলিমরা সবচেয়ে গরীব আর বঞ্চিত। ভাল, আরেকটা কাশ্মীর তৈরি হচ্ছে।” এখানেই থামেননি তিনি। ফলপ্রকাশের পর আরও কিছু টুইট করেন। তার পরেই তাঁর অ্যাকাউন্ট সাসপেন্ড করে টুইটার।

[আরও পড়ুন : মুখ্যমন্ত্রী হয়েই কাজে গতি আনলেন মমতা, একাধিক জেলাশাসক রদবদল]

প্রসঙ্গত কয়েক মাস আগে এই ভারতীয় অ্যাপ ‘কু’ (Koo app) আত্মপ্রকাশ করে। অনেক বলিউড সেলিব্রিটি এই ভারতীয় অ্যাপে অ্যাকাউন্ট খোলেন। তাঁদের মধ্যে ছিলেন কঙ্গনা রানাউতও। ১৬ ফেব্রুয়ারি কঙ্গনা সেখানে একটি পোস্ট করেন। যাতে তিনি কু-কে নিজের ঘর (ভারতীয় অ্যাপের কারণে) বলে বর্ণনা করেন। এবার সেই পোস্টের স্ক্রিন শট শেয়ার করে অপ্রমেয় লিখেছেন, “কঙ্গনাজি, এটা আপনার নিজের ঘর, এখানে গর্বের সঙ্গে আপনি আপনার কথা সবাইকে বলতে পারেন।” কু-এর আর এক সহপ্রতিষ্ঠাতা মায়াঙ্ক বিদওয়াতকাও কঙ্গনাকে স্বাগত জানিয়েছেন।

[আরও পড়ুন : রাজ্যে মোট করোনা সংক্রমিতের সংখ্যা ৯ লক্ষ পার, বাড়ছে অ্যাকটিভ কেস]

এর আগে বিজেপি নেতারাও ‘আত্মনির্ভর ভারত’-এর উদ্যোগে তৈরি অ্যাপ ‘কু’-এর প্রশংসা করেন। কিন্তু টুইটারের দাপটে এটি এখনও সেভাবে জনপ্রিয়তা লাভ করেনি। তাই কঙ্গনার মতো সোশ্যাল মিডিয়ায় মুখর সেলিব্রিটিকে যদি কু-এ সক্রিয় হতে দেখা যায় তবে স্বাভাবিকভাবেই তাঁর অনেক অনুগামীও কু-তে তাঁকে অনুসরণ করে খাতা খুলতে পারেন। এখন দেখার কু মালিকদের এই উষ্ণ অভ্যর্থনা কতটা কাজে দেয়।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement