BREAKING NEWS

১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

একনজরে টলিউডে করোনার প্রকোপ, পিছল রাজের ‘ধর্মযুদ্ধ’ ও দেবের ‘গোলন্দাজ’-সহ একগুচ্ছ ছবি

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: March 17, 2020 5:11 pm|    Updated: March 17, 2020 5:14 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মারণ ভাইরাস করোনার জেরে বিপর্যস্ত বিনোদন ইন্ডাস্ট্রি। বলিউডে একধাক্কায় লোকসান ৫০০ থেকে ৮০০ কোটি টাকা। গত দিন দুয়েকের রিপোর্ট বলছে, গোটা দেশে প্রায় ১৫০০ প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ হয়েছে। বাতিল বহু শুটিং। সতর্কতা অবলম্বনে অনেকেই ব্যক্তিগতভাবে কোয়ারেন্টাইনে থাকাই বুদ্ধিমত্তার বলে মনে করছেন। মুম্বইয়ের মতো টলিউডেও বড় আর্থিক ক্ষতির সম্ভাবনা। কারণ, সরকারের নির্দেশিকায় মাঝপথে শুটিং থামাতে বাধ্য হয়েছেন অনেকেই। পিছিয়েছে বহু ছবির মুক্তির দিন। এমতাবস্থায় পরবর্তীতে যদি একইসঙ্গে একাধিক ছবি মুক্তি পায়, তাহলে প্রথমত সিনেমাহল না পাওয়ার আশঙ্কা থাকবে। এবং দ্বিতীয়ত বক্স অফিসে আশাতীত লক্ষ্মীলাভ থেকেও প্রযোজকরা বঞ্চিত থাকবেন বলে মনে করছেন সিনে বাণিজ্য বিশ্লেষকরা। একনজরে করোনার জেরে টলিউডে কী কী ছবির মুক্তি পিছল এবং শুটিং বাতিল হল কিংবা তাদের ভবিষ্যতই বা কী হবে? রইল তালিকা।

যে সমস্ত বাংলা ছবিগুলো মার্চ মাসে মুক্তি পেয়েছিল, সেগুলো কি আবার মুক্তি পাবে কিনা, সেই প্রশ্ন ইতিমধ্যেই উঠেছে। কারণ, গত ১ সপ্তাহে করোনা সংক্রমণ এড়াতে প্রেক্ষাগৃহে লোক কম আসছেন, ফলে আশাতীত সাফল্য থেকে বঞ্চিত হয়েছে সেসব ছবির নির্মাতারা। উল্লেখ্য, শিবপ্রসাদ-নন্দিতার ছবি ‘ব্রহ্মা জানেন গোপন কম্মটি’ আবার মুক্তি পাচ্ছে। অন্যদিকে পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে শিবু-নন্দিতার ‘হামি টু’ ছবির শুটিং। 

পিছিয়েছে রাজ চক্রবর্তী প্রযোজিত এবং পরিচালিত ‘ধর্মযুদ্ধ’-র মুক্তির তারিখ। প্রসঙ্গত, এপ্রিল মাসেই মুক্তি পাওয়ার কথা কোয়েল মল্লিক অভিনীত ‘রক্তরহস্য’ এবং পরিচালক ইন্দ্রদীপ দাশগুপ্তর ‘আগন্তুক’ও। যে ২টি ছবির ট্রেলার-টিজার ইতিমধ্যেই সিনেদর্শকদের মধ্যে উন্মাদনার সৃষ্টি করেছে। কিন্তু করোনার জেরে এই ছবিগুলোর মুক্তি পিছবে কিনা, তা এখনও ঘোষণা করা হয়নি। আগামী ৩১ মার্চ অবধি রাজ্যের সব প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ। নির্দেশিকার দিন যদিও আরও বাড়িয়ে দেওয়া হয় অদূর ভবিষ্যতে, তাহলে যে মুক্তি পিছবে, নিঃসন্দেহে বলাই যায়। উল্লেখ্য, তাপস পালের শেষ ছবি ‘বাঁশি’ও ২৭ মার্চ মুক্তি পাচ্ছে না। নতুন মুক্তির দিন ঘোষণা হবে পরে।  দেব প্রযোজিত ‘হবুচন্দ্র রাজা গবুচন্দ্র মন্ত্রী’ ও ‘টনিক’-এর মুক্তি নিয়েও চিন্তিত দেব।

[আরও পড়ুন: করোনার জেরে ৫০০ কোটির ধাক্কা, টেকনিশিয়ানদের অর্থ সাহায্যের প্রস্তাব বলিউড পরিচালকদের ]

অভিনেতা জিৎ মদনানি প্রযোজিত ‘বাজি’র শুটিং লন্ডনে শুরু হতে না হতেই, বাতিল হয়েছে। পাততাড়ি গুটিয়ে গোটা টিম কলকাতায় ফিরছে। বাতিল হয়েছে দেবের ‘গোলন্দাজ’-এর দ্বিতীয় শিডিউলের শুটিং। কবে থেকে শুরু হবে, তা এখনও ঠিক হয়নি। ব্রাত্য বসু পরিচালিত নুসরত জাহান ও আবীর চট্টোপাধ্যায় অভিনীত ‘ডিকশনারি’ ছবির বাকি শুটিং পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে আপাতত। এসভিএফ প্রযোজনা সংস্থার তরফেও যাবতীয় ছবি ও ওয়েব সিরিজের শুটিং বন্ধ থাকছে আগামী ৩১ মার্চ পর্যন্ত। সদ্য ঘোষিত পরিচালক শ্রীমন্ত সেনগুপ্তর ‘আবার বছর কুড়ি পরে’ ছবির শুটিংও পিছোল। মৈনাক ভৌমিকের ‘চিনি’র শুটিং শিডিউলও বাতিল হল। এমতাবস্থায় সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের বায়োপিকের শুটিংও পিছবে বলে শোনা গিয়েছে।

তবে ব্যতিক্রম একমাত্র সৃজিত মুখোপাধ্যায়ের ‘কাকাবাবু’! আফ্রিকার জঙ্গলে ‘কাকাবাবুর প্রত্যাবর্তন’-এর শুটিং চলছে নির্বিঘ্নেই। কারণ, সে দেশে আপাতত করোনা কামড় বসায়নি। ১৯ মার্চ তাঁরা ফিরে আসছেন কলকাতায়। তবে ছবির পাশাপাশি টেলি ইন্ডাস্ট্রিতেও বড় কোপ পড়ল। আগামী ৩০ মার্চ অবধি শুটিং বন্ধ থাকলে কলাকুশলীরা যে সমস্যায় পড়বেন, তা বলাই যায়। সেক্ষেত্রে নতুন পর্ব না দেখতে পেয়ে টেলি দর্শকরাও নিরাশ হবেন!

[আরও পড়ুন: হিন্দু-মুসলিমের নামে বিভাজনকারীরা কোথায়? করোনা আতঙ্কের মাঝেই প্রশ্ন আরবাজ খানের ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement