৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

অপারেশন না হলে চিরতরে দৃষ্টিশক্তি হারাতে পারে শিশু! সাহায্যের প্রতিশ্রুতি সাংসদ দেবের

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: September 16, 2020 9:13 am|    Updated: September 16, 2020 1:03 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অপারেশন না করাতে পারলে চিরতরে দৃষ্টিশক্তি হারাতে পারে শিশুর! সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দিয়ে পাশে দাঁড়ালেন দেব। আবারও ত্রাতার ভূমিকায় তৃণমূল সাংসদ তথা অভিনেতা।

ফের মানবিকতার নজির গড়লেন সাংসদ-অভিনেতা দেব (MP Actor Dev)। ছোট্ট সাবির দুরারোগ্য চোখের ব্যধিতে আক্রান্ত। দৃষ্টিশক্তি চলে যেতে বসেছে সারা জীবনের জন্য। অপারেশন করাতে হবে। কিন্তু অভাবের সংসারে টাকা কোথায়? উপরন্তু গোদের উপর বিষফোঁড়া করোনা। বিগত কয়েক মাস লকডাউনের জেরে সাবিরের পরিবারে অর্থাভাব আরও বেড়েছে। তাই ছেলের চোখের অপারেশনের জন্যও টাকা জোগাড় করতে পারছেন না তাঁরা। টুইটারে এই ছোট বাচ্চাটির গুরুতর সমস্যার কথা দেবকে জানিয়েছিলেন এক মহিলা। সাংসদকে ট্যাগ করে সাহায্যের আরজি জানিয়েছিলেন। আর তা দেবের চোখে পড়তেই সেই দুস্থ পরিবারের শিশুটির চোখের অপারেশনের জন্য এগিয়ে আসবেন বলে প্রতিশ্রুতি দেন।

‘রিল লাইফে’র পর ‘রিয়েল লাইফে’ও যে আদতে তিনি ‘হিরো’ হয়ে উঠেছেন, আবারও সেই প্রমাণই দিলেন দেব। দিন কয়েক আগেই থ্যালাসেমিয়া আক্রান্ত এবং আরেক ব্লাড ক্যান্সারে আক্রান্ত শিশুর সাহায্যে এগিয়ে এসেছিলেন সাংসদ।

[আরও পড়ুন: বায়োপিকের প্রস্তুতি! হৃতিককে কেন নিজের মতো চেহারা তৈরির পরামর্শ দিলেন সৌরভ?]

অন্যদিকে, মুমূর্ষু এক রোগীর দিকেও সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে সাংসদ দেব ও তাঁর টিম। রোগীর মেয়ে জানিয়েছেন, তাঁর বাবা টাইফয়েডে আক্রান্ত। করোনা টেস্ট হয়েছে। রিপোর্ট আসেনি এখনও। প্রবল শ্বাসকষ্ট হওয়ায় বারুইপুর হাসপাতালে ভরতি রয়েছেন। যেখানে অক্সিজেন ইউনিট কাজ করছে না! নেই ভেন্টিলেশনের ব্যবস্থাপনাও। অন্যদিকে করোনা রিপোর্ট না আসায় অন্য কোনও হাসপাতালও ভরতি নিতে চাইছে না। সবমিলিয়ে সঙ্গীন পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে ওই রোগীর পরিবার। সোশ্যাল মিডিয়ার দৌলতে সেই খবর সাংসদ দেব অবধি পৌঁছলে, তিনিই ফেসবুকে রোগীর মেয়ের পোস্ট শেয়ার করে সাহায্যের প্রতিশ্রুতি দেন।

পরিযায়ীদের ঘরে ফিরিয়ে আগেই মন জয় করেছেন সাংসদ দেব (Dev)। দুস্থদের সাহায্যেও বারবার পাশে থেকেছেন। দিন কয়েক আগেই বেলঘড়িয়ার এক বৃদ্ধ মাস্ক বিক্রেতার পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। সাংসদের সাহায্যেই যাদবপুরের মুমূর্ষু করোনা রোগী হাসপাতালে ভরতি হতে পেরেছিলেন। এমনকী, টালিগঞ্জের এক করোনা আক্রান্ত পরিবারের আরজিতে নিত্যসামগ্রীও পৌঁছে দিয়েছেন। করোনা আক্রান্ত রোগীর জন্য প্লাজমার ব্যবস্থা করেছেন। এবার ফের এক শিশুর চিকিৎসার জন্য পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর প্রতিশ্রুতি দিলেন সাংসদ দেব। জনসাধারণের বিপদের দিনে সাংসদের এমন উদ্যোগে ধন্য ধন্য করছেন অনুরাগীরা।

[আরও পড়ুন: বাংলো ভাঙার ক্ষতিপূরণ হিসেবে ২ কোটি টাকা দিক BMC, দাবি তুলে বম্বে হাই কোর্টে কঙ্গনা]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement