Advertisement
Advertisement
Netflix's Delhi Crime The 48th International Emmy Awards

এমি অ্যাওয়ার্ডসে ভারতের সাফল্য, বেস্ট ড্রামা সিরিজ নির্বাচিত ‘দিল্লি ক্রাইম’

এই প্রথমবার ভারচুয়ালি পুরস্কার প্রদান করা হল।

Netflix's Delhi Crime won the Best Drama Series award in The 48th International Emmy Awards ।Sangbad Pratidin
Published by: Sayani Sen
  • Posted:November 24, 2020 9:03 am
  • Updated:November 24, 2020 9:22 am

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ৪৮ তম ইন্টারন্যাশনাল এমি অ্যাওয়ার্ডসে (International Emmy Awards) ভারতের সাফল্য। বেস্ট ড্রামা সিরিজ পুরস্কার পেল ২০১২-র নির্ভয়া গণধর্ষণ ও খুনের ঘটনা নিয়ে তৈরি নেটফ্লিক্সের (Netflix) ওয়েব সিরিজ ‘দিল্লি ক্রাইম’।

খাস রাজধানী দিল্লির বুকে চলন্ত বাসে গণধর্ষণের শিকার হন প্যারামেডিক্যাল ছাত্রী। বাধা দেওয়ায় বেধড়ক মারধর করা হয় প্রেমিককে। নৃশংস অত্যাচারের পর ছাত্রীর যৌনাঙ্গে ঢুকিয়ে দেওয়া হয় লোহার রড। তারপর চলন্ত বাস থেকে ছুঁড়ে ফেলে দেওয়া হয় নির্যাতিতা এবং তাঁর প্রেমিককে। চিকিৎসা করেও কোনও লাভ হয়নি। শেষ পর্যন্ত মৃত্যু হয় তরুণীর। হাড় কাঁপানো নির্ভয়া কাণ্ডে গোটা দেশে তোলপাড় হয়। ২০১২ সালের সেই ঘটনায় দোষীরা চলতি বছরে ফাঁসির সাজা পায়। নির্ভয়া গণধর্ষণ এবং খুনের ঘটনা নিয়ে তৈরি নেটফ্লিক্সের ওয়েব সিরিজ ‘দিল্লি ক্রাইম’ (Delhi Crime)। যেখানে ডেপুটি পুলিশ কমিশনারের চরিত্রে অভিনয় করেন শেফালি শাহ, পরিচালক ছিলেন রিচি মেহতা। ‘দিল্লি ক্রাইম’-এর সাফল্যের ঝুলিতে জুড়ল এমি অ্যাওয়ার্ডস। বেস্ট ড্রামা সিরিজ নির্বাচিত এই ওয়েব সিরিজ।

Advertisement

[আরও পড়ুন: আরও বিপাকে নেটফ্লিক্স, ওয়েব সিরিজে চুম্বন দৃশ্যের জন্য দুই আধিকারিকের বিরুদ্ধে FIR]

অ্যামাজন প্রাইমে ‘মেড ইন হেভেন’-এর (Made In Heaven) জন্য সেরা অভিনেতা বিভাগে মনোনীত হন অর্জুন মাথুর। তবে তিনি পুরস্কার পাননি। ‘রেসপন্সিবল চাইল্ড’-এর জন্য সেরা নির্বাচিত হয়েছেন বিলি ব্যারাট। বেস্ট কমেডি সিরিজ বিভাগে মনোনীত হয়েছিল প্রাইম ভিডিওর ‘ফোর মোর শটস প্লিজ’। এই সিরিজ অবশ্য পুরস্কার পায়নি। গত বছর ‘লাস্ট স্টোরিজ’-এর জন্য সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কার পান রাধিকা আপ্তে। এবারও ভারতে এল পুরস্কার।

করোনা (Coronavirus) আবহে সমস্ত অনুষ্ঠানের তাল কেটেছে। ৪৮ তম ইন্টারন্যাশনাল এমি অ্যাওয়ার্ডসও তার ব্যতিক্রম নয়। চলতি বছর কোভিড পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠান ভারচুয়ালি করা হয়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে প্রথমবার এই পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে কোনও দর্শক ছিলেন না। ওই ফাঁকা হলে অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন অভিনেতা রিচার্ড কাইন্ড।

[আরও পড়ুন: ডেটিং অ্যাপের বিভ্রাটে পাকিস্তানির অনুপ্রবেশ, তারপর…! দেখুন ‘ইন্দু কি জওয়ানি’ ছবির ট্রেলার]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ