BREAKING NEWS

১০  আশ্বিন  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘তোমরা কী ছাগল না পাগল?’, ‘ধর্মযুদ্ধ’ বয়কটের ডাক দিতেই ফুঁসে উঠলেন পরিচালক রাজ

Published by: Suparna Majumder |    Posted: August 14, 2022 6:43 pm|    Updated: August 14, 2022 6:43 pm

Netizens call for boycott the film 'Dharmajudda', director Raj Chakraborty lashes out | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সোশ্যাল মিডিয়ায় বয়কটের ডাক যেন ট্রেন্ড হয়ে উঠেছে। ‘লাল সিং চাড্ডা’, ‘রক্ষা বন্ধন’-এর মতো সিনেমার পাশাপাশি রাজ চক্রবর্তীর (Raj Chakraborty)  ‘ধর্মযুদ্ধ’ সিনেমাও বয়কটের ডাক দেওয়া হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এরই তীব্র প্রতিবাদ করলেন পরিচালক। টুইটারে নিন্দুকদের একহাত নিলেন তিনি। 

Dharmajuddha

আধুনিক হয়েছে সমাজ। কিন্তু ধর্মভেদ আর জাতিতত্ত্ব আজও সমাজে বিদ্যমান। ধর্মের নামে চলে রাজনীতি। জাতিতত্ত্বকে সামনে রেখেই শাসন চালায় সুবিধাভোগী মানুষ। এইসব সমস্যাকেই রাজ চক্রবর্তী তুলে এনেছেন ‘ধর্মযুদ্ধ’ (Dharmajuddha)  ছবিতে। বহুদিনের অপেক্ষার পর গত শুক্রবার ছবিটি সিনেমা হলে মুক্তি পেয়েছে। এর মধ্যেই ছবি বয়কটের ডাক দিয়েছে নেটিজেনদের একাংশ। ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাতের অভিযোগ আনা হয়েছে। 

[আরও পড়ুন: উদ্দাম যৌনতার ভিডিও ফাঁস! প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে কেঁদে ভাসালেন ‘কাঁচা বাদাম’ খ্যাত অঞ্জলি]

এমনই একটি টুইট শেয়ার করেছেন পরিচালক রাজ। যাতে অভিযোগ করা হয় রাজ চক্রবর্তীর পরিচালিত ‘ধর্মযুদ্ধ’ সিনেমায় গীতা শ্লোক পড়তে পড়তে মানুষের গলা কাটা দেখানো হয়েছে। সিনেমাটিকে হিন্দু ধর্মের বিরোধী বলে বয়কটেরও ডাক দেওয়া হয়। এতেই ফুঁসে ওঠেন রাজ। পরিচালক লেখেন, “ধর্মযুদ্ধ’-এ কোথাও গলা কাটা তো দূরে থাক, এক ফোটা রক্তপাতও দেখানো হয়নি। আর তোমরা সিনেমাটা না দেখেই বয়কটের ডাক দিচ্ছো? তোমরা কী ছাগল না পাগল?”

Raj Chakraborty Tweet

উল্লেখ্য, রাজের ‘ধর্মযুদ্ধ’ ছবির কেন্দ্রে রয়েছে জবর, রাঘব, শবনম, আম্মি ও মুন্নি নামের পাঁচটি চরিত্র। জবরের চরিত্রে অভিনয় করেছেন সোহম চক্রবর্তী। রাঘবের ভূমিকায় ঋত্বিক চক্রবর্তী। মুন্নি ও শবনমের চরিত্রে অভিনয় করেছেন শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায় এবং পার্ণো মিত্র। আর আম্মির ভূমিকায় অভিনয় করেছেন প্রয়াত কিংবদন্তি স্বাতীলেখা সেনগুপ্ত। দাঙ্গা নয়, ভালোবাসা, সহিষ্ণুতা ও ধর্মে আঘাত না করে সম্প্রীতির পরিমণ্ডলে বাস করাটাই আদর্শ হওয়া উচিত। ছবির শেষে এই শিক্ষাই পরিচালক রাজ চক্রবর্তী রেখেছেন। 

[আরও পড়ুন: হৃদরোগের জেরে নার্ভের সমস্যা, রাজু শ্রীবাস্তবের জন্য মহামৃত্যুঞ্জয় জপ করাচ্ছেন কৈলাস খের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে