BREAKING NEWS

১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

‘টেকো’র মুক্তি ঘিরে জটিলতা, বিপাকে পরিচালক অভিমন্যু!

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: November 6, 2019 3:35 pm|    Updated: November 6, 2019 4:18 pm

Stay order on Ritwik Chakraborty's Bengali movie Teko

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুক্তির আগেই বিপাকে পরিচালক অভিমন্যু মুখোপাধ্যায়ের ছবি ‘টেকো’। প্রেক্ষাগৃহে আসার কথা ছিল ২২ নভেম্বর। কিন্তু, তা বোধহয় আর হল না। কারণ, ‘টেকো’ মুক্তিতে দেখতে পাওয়া যাচ্ছে অশনি সংকেতের ছায়া।

চুল নিয়ে আমাদের যত চুলোচুলি, আপাতদৃষ্টিতে এই সমস্যা নিয়ে আমরা ঠাট্টা করলেও বিষয়টি কিন্তু রীতিমতো গুরুতর পর্যায়ে পৌঁছেছে বর্তমানে। অকালে টাক পড়ে যাওয়ার জন্য প্রেমিকাদের কাছেই হোক কিংবা বন্ধুবান্ধব, আত্মীয়-স্বজনদের কাছে, প্রায়ই ঠাট্টা-টিটকিরির শিকার হতে হয়। অতঃপর অনেকেই হতাশাগ্রস্থ হয়ে পড়েন। এরপর চলে বিজ্ঞাপন দেখে একের পর এক মাথার তেল, শ্যাম্পু কিনে মাখামাখির পালা। ঠিক এরকমই একটি বাস্তব সমস্যা নিয়ে ‘টেকো’ তৈরি করেছিলেন পরিচালক অভিমন্যু মুখোপাধ্যায়। কাস্টিংয়েও চমক- ঋত্বিক চক্রবর্তী এবং শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। অতঃপর, বাস্তব জীবনের দৈনন্দিন সমস্যাগুলো পর্দায় দেখতে যে বাঙালি সিনেদর্শকরা মুখিয়ে ছিলেন, তা বলাই বাহুল্য। কিন্তু মুক্তির আগেই বিপাকে পড়েছে। নির্ধারিত দিনে ‘টেকো’ মুক্তি ঘিরে দেখা দিয়েছে জটিলতা। বিজ্ঞাপন বিরোধী কিছু কন্টেন্ট থাকাতেই আপত্তি উঠেছে এই ছবি নিয়ে। সূত্রের খবর তো অন্তত এমনটাই বলছে।  

[আরও পড়ুন: বিজ্ঞাপনের ফাঁদে পড়ার আগে সাবধান! উদ্বেগ প্রকাশ ‘টেকো’ ঋত্বিকের]

‘টেকো’ মুক্তির স্থগিতাদেশের খবরে জলঘোলা হতেই পরিচালক অভিমন্যু মুখোপাধ্যায়ের সঙ্গে যোগাযোগ করা হল সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল-এর তরফে। পরিচালকের কথায়, কোনওরকম আইনি নোটিস এখনও পাননি তাঁরা। এমনকী, কোন কারণে ‘টেকো’ মুক্তিতে স্থগিতাদেশ এল, সেটাও এখনও অবধি অজানা তাঁর কাছে। তবে অভিমন্যু এও উল্লেখ করেছেন যে, কোনও এক সূত্র থেকে তিনি জানতে পেরেছেন যে আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সম্ভবত ‘টেকো’র প্রযোজনা সংস্থা সুরিন্দর ফিল্মসের কাছে আইনি নোটিস আসতে পারে!

প্রসঙ্গত, বাংলায় ‘টেকো’ এবং হিন্দিতে ‘উজড়া চমন’ ও ‘বালা’ এই ৩টি ছবির বিষয়বস্তুই এক। আর ছবি ৩টির মুক্তির তারিখ একই মাসে ঘোষণা হওয়ার পর থেকেই বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে ইতিমধ্যেই ‘উজড়া চমন’ এবং ‘বালা’ নিয়ে প্রযোজক-পরিচালকদের মধ্যে এক দফা তরজা হয়ে গিয়েছে। তবে উল্লেখ্য, ‘টেকো’র গল্প কিন্তু সম্পূর্ণ ভিন্ন। ক্রেতা ধরতে আকর্ষণীয় বিজ্ঞাপন দিয়ে প্রলোভন দেখিয়ে রোজ হাজার হাজার মানুষকে যেভাবে বোকা বানানো হচ্ছে, তার সাবধানবাণী দিতেই ‘টেকো’ তৈরি করেছেন অভিমন্যু। কিন্তু কেন, কী কারণে এই ছবির মুক্তি আটকে দেওয়া হল, এখনও পর্যন্ত তা অধরাই। তবে অভিমন্যু যে ‘উজড়া চমন’ এবং ‘বালা’ এই ২টি ছবিই দেখবেন, সেকথাও জানিয়েছেন।

[আরও পড়ুন: ঝরে গেলে ফিরে পাবে না চুল! কেন এমন বলছেন ঋত্বিক?]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে