BREAKING NEWS

১৩ ফাল্গুন  ১৪২৭  শুক্রবার ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

সুশান্ত কাণ্ডে নয়া মোড়, গ্রেপ্তার প্রাক্তন সহকারী পরিচালক তথা ঘনিষ্ঠ বন্ধু ঋষিকেশ

Published by: Suparna Majumder |    Posted: February 3, 2021 1:44 pm|    Updated: February 3, 2021 2:10 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নতুন করে গতি পেল সুশান্ত সিং রাজপুতের (Sushant Singh Rajput) মৃত্যুর তদন্ত। সুশান্তকে মাদক সরবরাহের অভিযোগে প্রাক্তন সহকারী পরিচালক ঋষিকেশ পাওয়ারকে (Rishikesh Pawar) গ্রেপ্তার করল নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো। সুশান্তের ঘনিষ্ঠ বন্ধুও ছিলেন ঋষিকেশ।

সুশান্তের সঙ্গে বেশ কিছু ছবিতে কাজ করেছেন ঋষিকেশ। সূত্রের খবর, বেশ কিছুদিন ধরেই তাঁর উপরে নজর ছিল NCB আধিকারিকদের। এর আগে একাধিকবার ঋষিকেশকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠানো হয়েছিল। অগ্রিম জামিনের আবেদনও করেছিলেন তিনি। কিন্তু আদালতে সে আবেদন ধোপে টেকেনি। মঙ্গলবার বলিউডের প্রাক্তন সহকারী পরিচালককে ফের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠানো হয়। জিজ্ঞাসাবাদের পর ঋষিকেশের উত্তরে সন্তুষ্ট ছিলেন না NCB-র আধিকারিকরা। সেই কারণেই তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে খবর। তদন্তকারী অফিসারদের সন্দেহ, ঋষিকেশ শুধু সুশান্তকে নিষিদ্ধ মাদকই সরবরাহ করতেন না তাঁকে নানা ধরনের নেশা করার প্রলোভনও দেখাতেন। ইতিমধ্যেই ঋষিকেশের ল্যাপটপ ও মোবাইল বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: OMG! ভামিকার বদলে কোহলির কোলে রাজ-শুভশ্রীর ছেলে যুভান! এও সম্ভব?]

২০২০ সালের ১৪ জুন বান্দ্রার ফ্ল্যাট থেকে সুশান্ত সিং রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। প্রথমে মুম্বই পুলিশ এই মামলার তদন্ত শুরু করেছিল। তারপর সুশান্তের বাবার অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করে বিহার পুলিশ। পরে সুশান্ত মামলার তদন্তভার যায় কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার (CID) হাতে। ঘটনার আর্থিক তছরুপের দিকটি খতিয়ে দেখার দায়িত্ব নেয় এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টোরেট (ED)। আর মাদক মামলার তদন্ত শুরু করে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো। মাদক মামলাতেই সুশান্তের প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তী (Rhea Chakraborty) এবং তাঁর ভাই সৌভিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। শর্ত সাপেক্ষে জামিন পান দু’জন। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য NCB দপ্তরে হাজিরা দিতে হয়েছে দীপিকা পাড়ুকোন (Deepika Padukone), সারা আলি খান (Sara Ali Khan), শ্রদ্ধা কাপুর (Shraddha Kapoor), রকুলপ্রীত সিংকে (Rakul Preet Singh)। গ্রেপ্তার করা হয়েছিল কমেডিয়ান ভারতী সিং (Bharti Singh) এবং তাঁর স্বামী হর্ষ লিম্বাচিয়াকে। সেই দু’জনও জামিনে মুক্ত। গ্রেপ্তারির পর জামিন পেয়েছেন করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশনের প্রাক্তন প্রোডিউসার ক্ষীতিশ প্রসাদ এবং প্রযোজক ফিরোজ নাদিয়াদওয়ালার স্ত্রী। ডাক পড়েছিল অর্জুন রামপালেরও (Arjun Rampal)। মাদক পাচারের অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল অর্জুনের প্রেমিকা গ্যাব্রিয়েলার ভাইকে। সেই সূত্রেই অভিনেতাকে NCB অফিসে হাজিরা দিতে হয়।

[আরও পড়ুন: কৃষক আন্দোলনের পাশে মার্কিন পপ-তারকা রিহানা, কটাক্ষ ক্ষুব্ধ কঙ্গনার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement