৯ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

উত্তরপ্রদেশে বিষমদ পান করে মৃত ১৪, দু’লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপূরণ ঘোষণা যোগী প্রশাসনের

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: May 29, 2019 5:28 pm|    Updated: May 29, 2019 5:28 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘রাম’রাজ্যে ফের অনাচার! কিছুদিন আগেই বিষমদ খেয়ে উত্তরপ্রদেশে বেশ কয়েকজনের মৃত্যু হয়েছিল। একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটল মঙ্গলবার। উত্তরপ্রদেশের বারাবাঁকিতে বিষমদ খেয়ে অন্তত ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। অসুস্থ হয়ে পড়েছেন আরও ৪০ জন। তাদের নিকটবর্তী হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে। এদের মধ্যে অন্তত ২ জনের অবস্থা গুরুতর।

[আরও পড়ুন: বিদ্বেষের শিকার মুম্বইয়ের দলিত চিকিৎসক পায়েল, তদন্তে মিলছে ইঙ্গিত]

মঙ্গলবার বিকেলে বারাবাঁকির রামগড় এলাকার একটি অবৈধ মদের দোকান থেকে মদ পান করেন। মদ পানের সঙ্গে সঙ্গেই অসুস্থ বোধ করেন তাঁরা। ঘটনাস্থলেই ৮ জনের মৃত্যু হয়। আহতদের নিকটবর্তী হাসপাতালে ভরতি করা হয়। সেখানেই গতকাল মৃত্যু হয় আরও চারজনের। বুধবার আরও দু’জনের মৃত্যু হয়েছে বলে খবর। স্থানীয়দের দাবি, এর পিছনে গভীর ষড়যন্ত্র রয়েছে। কেউ ইচ্ছে করে ওই মদে বিষ মিশিয়ে দিয়েছে।

ঘটনার খবর প্রকাশ্যে আসতেই নড়েচড়ে বসে প্রশাসন। তড়িঘড়ি তদন্তের নির্দেশ দেয় উত্তরপ্রদেশের আবগারি দপ্তর। সেই সঙ্গে যাদের বিরুদ্ধে গাফিলতির অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থাও নেওয়া হয়েছে। আবগারি দপ্তরের মন্ত্রী জয়প্রতাপ সিং জানিয়েছেন, “একজন জেলাস্তরের আধিকারিক, পাঁচজন পুলিশ আধিকারিক, এবং ৩ জন হেড কনস্টেবলকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।” স্থানীয়দের দেওয়া তথ্য নিয়ে একজনকে গ্রেপ্তার করার উদ্দেশ্য যায় পুলিশ। মূল অভিযুক্ত পাপ্পু জয়সওয়ালকে গ্রেপ্তার করতে গেলে সে পালানোর চেষ্টা করে। পুলিশের গুলিতে পাপ্পু জয়সওয়াল আহত হয়েছেন। সেই এই কাণ্ডটি ঘটিয়েছে বলে মনে করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: নির্বাচনী আবহ কাটতেই ফের মহার্ঘ পেট্রল-ডিজেল, ভোগান্তি বাড়ল সাধারণের]

ইতিমধ্যেই মৃতদের পরিবারকে ২ লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। ঘটনার তদন্তে একটি কমিটি তৈরি করা হয়েছে। ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে এই কমিটি নিজেদের রিপোর্ট পেশ করবে।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement