৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  বুধবার ২০ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  বুধবার ২০ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আজই সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ পর্বে যবনিকা পড়তে চলেছে। রবিবার সাত রাজ্যের ৫৯ আসনে শুরু হয়েছে ভোটগ্রহণ। ইভিএমে গণ্ডগোল ছাড়া সকাল থেকে তেমন কোনও হিংসাত্মক ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। সপ্তম তথা শেষ দফার ভোট হচ্ছে উত্তরপ্রদেশের ‘হাই ভোল্টেজ’ কেন্দ্র বারাণসীতে। পাঁচ বছর আগে প্রবল ঝড় তুলে বারাণসী থেকে বিজেপির প্রার্থী হয়েছিলেন ‘গুজরাতের মুখ্যমন্ত্রী’ নরেন্দ্র মোদি। লড়াইটা শক্তই ছিল। প্রতিপক্ষের নাম আপ প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়াল। তাতেও মার্জিন ছিল তিন লক্ষ একাত্তর হাজারের বেশি। গত বিধানসভা ভোটে এই লোকসভার পাঁচ বিধানসভাই গেরুয়ার কব্জায়। প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরার সক্রিয় রাজনীতিতে আসা এবং কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক হিসাবে পূর্ব উত্তরপ্রদেশের দায়িত্ব নেওয়ার পর তাঁর বারাণসীতে প্রার্থী হওয়া নিয়ে জোর জল্পনা চলেছে। প্রিয়াঙ্কা প্রার্থী না হলেও মোদির প্রতিদ্বন্দ্বী শ’ খানেক। তবু বারাণসীর বিজেপি প্রার্থীর জয় নিয়ে বিরোধীরাও একশো শতাংশ নিশ্চিত। বিজেপির চ্যালেঞ্জ অবশ্য মার্জিন বাড়ানো। মোদি ছাড়াও এই দফার ভোটে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের বেশ কিছু হেভিওয়েট নেতার ভাগ্য নির্ধারণ হবে।

[আরও পড়ুন: ভোটের পর কোন শিবিরকে সমর্থন? ইঙ্গিত দিলেন নবীন পট্টনায়েক]

গত ১১ এপ্রিল শুরু হয় লোকসভা নির্বাচনের প্রথম দফা ভোট। এরই মধ্যে শেষ হয়েছে ছ’ দফায় ৪৮৪ আসনের ভোট হয়েছে। আজকের ৫৯ আসনের ভোট হয়ে গেলে লোকসভার মোট ৫৪৩ আসনের ভোট পর্ব সমাপ্ত হবে। এদিন ভোট হবে উত্তরপ্রদেশ ও পাঞ্জাবের ১৩টি আসন, পশ্চিমবঙ্গের ৯টি আসন, ৮টি করে আসন বিহার ও মধ্যপ্রদেশের, হিমাচল প্রদেশের ৪টি আসনে, ঝাড়খণ্ডের ৩টি আসন এবং চণ্ডীগড়ের একটি আসনে।
শুক্রবার রাতে শেষ হয়েছে লোকসভা নির্বাচনের শেষ ধাপের প্রচার। নির্বাচনী প্রচারে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দাবি করেন, জনগণ তাঁকে ও তাঁর দল বিজেপিকে সমর্থন করছে। পাশাপাশি বিজেপি ফের ক্ষমতায় আসবে বলে তিনি আশাও করেন। আর কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী তাঁর ভোটপ্রচারে রাফাল ইস্যুতে প্রধানমন্ত্রী মোদিকে আক্রমণের পাশাপাশি অস্ত্র করেছেন ‘ন্যায়’ প্রকল্প।

[আরও পড়ুন: ‘কংগ্রেসের নিয়ম মানছেন না শত্রুঘ্ন’, দলেরই প্রার্থী তোপ দাগলেন ‘বিহারী বাবু’কে]

শেষ দফায় একগুচ্ছ হেভিওয়েট প্রার্থীর হবে ভাগ্য নির্ধারণ। যার মধ্যে রয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মনোজ সিনহা, রবিশংকর প্রসাদ, এইচ কে বাদল এবং হরদীপ সিং পুরি। এছাড়াও ভাগ্যনির্ধারণ হবে বিজেপির তারকা প্রার্থী কিরণ খের, সানি দেওল, রবি কিষেণের। ভাগ্য নির্ধারণ হবে তৃণমূল প্রার্থী সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়, সৌগত রায়, তারকা প্রার্থী মিমি চক্রবর্তী, নুসরত জাহানের। রয়েছেন কংগ্রেস প্রার্থী শত্রুঘ্ন সিনহা ও মীরা কুমার।

 

রাজ্যের ৪২ আসনের সম্ভাব্য ফলাফলের আভাস পেতে নজর রাখুন সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটালের ভোট পরবর্তী সমীক্ষায়৷ চোখ রাখুন সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটালের ফেসবুক পেজে, আজ সন্ধে ৭টায়৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং