BREAKING NEWS

৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৬ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

যোগীর রাজ্যে সাংবাদিকের রহস্যমৃত্যু, খুনের দায়ে কাঠগড়ায় ২ পুলিশকর্মী

Published by: Sayani Sen |    Posted: November 13, 2020 10:30 pm|    Updated: November 13, 2020 10:30 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের উত্তরপ্রদেশে (Uttar Pradesh) অস্বাভাবিক মৃত্যু এক সাংবাদিকের। এবার রেললাইনের উপর থেকে উদ্ধার হল তাঁর দেহ। নিহতের পরিবারের অভিযোগ, একজন মহিলা পুলিশকর্মী-সহ মোট দু’জন হুমকি দিয়েছিল তাঁকে। তাঁরাই প্ররোচনা দিয়ে ছেলেকে মৃত্যুর পথে ঠেলে দিয়েছে বলেই দাবি নিহত সাংবাদিকের মায়ের। অভিযোগ প্রমাণিত হলে পুলিশকর্মীদেরও রেয়াত করা হবে না বলেই দাবি তদন্তকারীদের।

অন্যান্য দিনের মতোই বৃহস্পতিবার বাড়ি থেকে বেরোন সাংবাদিক (Journalist) সুরজ পাণ্ডে। তবে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কেটে গেলেও বাড়ি ফেরেননি তিনি। রাতের দিকে উন্নাওয়ের কাছে রেললাইনের উপর থেকেই উদ্ধার হয় সুরজের ক্ষতবিক্ষত দেহ। সিও (সিটি) গৌরব ত্রিপাঠি জানান, সদর কোতয়ালিতে রেললাইন উপরেই পড়েছিল সুরজের দেহ। তিনি আত্মহত্যা করেছেন বলেই মনে করা হচ্ছে। তবে সবদিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলেও জানান তিনি। যদিও সুরজের মা লক্ষ্মীদেবী গোটা ঘটনাটিকে নিছক আত্মহত্যা হিসাবে সিলমোহর দিতে নারাজ। তাঁর দাবি, ছেলে সুরজকে মহিলা পুলিশ কনস্টেবল সুনীতা চৌরাশিয়া এবং অমর সিং হুমকি দিয়েছিল। তাদের প্ররোচনাতেই সুরজের এমন মর্মান্তিক পরিণতি। তবে কেন পুলিশকর্মীরা সুরজকে হুমকি দিয়েছিল সে বিষয়ে পরিষ্কার করে কিছুই জানাননি সাংবাদিক সুরজের মা।

[আরও পড়ুন: বাংলার ৬ জেলায় তৈরি সংগঠন, তৃণমূলের সঙ্গে জোটের রাস্তাও খুলে রাখল ওয়েইসির দল]

রাতেই সাংবাদিকের দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়। শুক্রবার কানপুরের গঙ্গাঘাটে তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়। সুরজের মায়ের দাবির ভিত্তিতে সাংবাদিকের অস্বাভাবিক মৃত্যুর তদন্ত শুরু হয়েছে। ওই দুই পুলিশকর্মীর (Police) বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ প্রমাণিত হলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেই আশ্বাস তদন্তকারীদের।

[আরও পড়ুন: ৩ দশক আগে রাম মন্দিরের ইট পুঁতেছিলেন, সেই দলিত নেতাই হতে পারেন বিহারের উপমুখ্যমন্ত্রী!]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement