BREAKING NEWS

৭  আশ্বিন  ১৪২৯  সোমবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

স্পা-র নামে পতিতালয়! নাবালিকা ‘রিসেপশনিস্ট’কে প্রতিদিন ধর্ষণ করত ১৫ জন

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: September 17, 2022 7:22 pm|    Updated: September 18, 2022 1:20 am

A Spa Operator and her Aides Booked for Allegedly Raping Teenage Receptionist | Sangbad Pratidin

প্রতীকী ছবি।

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অভাবে পড়ে কাজ খুঁজছিল ১৪ বছরের নাবালিকা। একটি স্পা-তে কাজও পায় সে। রিসেপশনিস্ট পদে। যদিও তাকে দিয়ে জোর করে পতিতাবৃত্তি করানো হয় বলে অভিযোগ। নাবালিকা জানিয়েছে, কাজে যোগ দেওয়ার পর থেকে প্রতিদিন ১০ থেকে ১৫ জন ধর্ষণ করে তাকে। হরিয়ানার (Haryana) এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসার পরেই নিন্দার ঝড় উঠেছে। নাবালিকার অভিযোগের ভিত্তিতে স্পা অপরেটর (Spa Operator) মহিলা-সহ চারজনের বিরুদ্ধে পকসো-সহ (POCSO) একাধিক ধারায় মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। যদিও এখনও পর্যন্ত কাউকে গ্রেপ্তার করা হয়নি।

১৪ সেপ্টেম্বর বুধবার গুরুগ্রামের (Gurugram) থানায় অভিযোগ দায়ের করে নাবালিকা। সে জানায়, টাকার প্রয়োজনে এক পরিচিত মহিলাকে কাজ খুঁজে দেওয়ার জন্য বলেছিল সে। ওই মহিলা তাঁর আত্মীয়ের স্পা-তে নাবালিকাকে রিসেপশনিস্টের কাজ পাইয়ে দেয়। যদিও নাবালিকার অভিযোগ, প্রথমদিনই তাকে জোর করে একটি একটি ঘরে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে অপরিচিত ব্যক্তির শয্যাসঙ্গী হতে বাধ্য করা হয়। ওই মুহূর্তের ভিডিও করে হুমকি দেওয়া হয়, কাজ ছাড়লেই ভিডিও প্রকাশ্যে আনা হবে।

[আরও পড়ুন: ‘স্থানীয় ভাষা বলতে পারেন এমন লোককে নিয়োগ করুন’, ব্যাংকগুলিকে নির্দেশ নির্মলার]

নাবালিকা পুলিশকে জানিেয়ছে, ভিডিও দেখে ভয় পেয়ে গিয়েছিল সে। এরপর আরও চার-পাঁচ দিন ওই স্পা-তে যায় সে। তার অভিযোগ, প্রতিদিন কমপক্ষে ১০ থেকে ১৫ জন পুরুষ তাকে ধর্ষণ করত। এরপর সে কাজে যাওয়া বন্ধ করে। যদিও স্পা অপরেটর মহিলা পিছু ছাড়েনি। তাকে ফোন করে ডেকে একটি হোটেলে নিয়ে গিয়ে মারধর করা হয়। এরপরই পুলিশে অভিযোগ দায়ের করে সে।

[আরও পড়ুন: ভেতরে পা, বাইরে রয়ে গিয়েছে গোটা শরীর, চলতে শুরু করল লিফট, মর্মান্তিক পরিণতি শিক্ষিকার ]

একটি সূত্রে জানা গিয়েছে, নাবালিকা আগে একবার পুলিশের কাছ গেলেও পুলিশ অভিযোগ নিতে চায়নি। তখন তাকে দিয়ে জোর করে মিথ্যা বলানো হয়েছিল যে রুবেল নামক এক অভিযুক্তের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক রয়েছে। ফের থানায় গেলে অভিযোগ নেয় পুলিশ। এদিকে পুলিশ জানিয়েছে, অভিযোগকারী নাবালিকা এখনও তার বয়সের প্রমাণপত্র জমা করেন। তবে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে। যদিও এখনও পর্যন্ত কেউ গ্রেপ্তার হয়নি। 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে