৬ ফাল্গুন  ১৪২৬  বুধবার ১৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের সামনে এল ভারতীয় সেনা জওয়ানদের মানবিক মুখ। তুষারধসের ফলে দুর্গম জায়গায় আটকে পড়া এক বৃদ্ধের প্রাণ বাঁচালেন তাঁরা। ঘটনাটি ঘটেছে জম্মু ও কাশ্মীরের কুপওয়ারা জেলার লালপোরা এলাকায়।

শুক্রবার সকালে সোশ্যাল মিডিয়াতে এই ঘটনার ভিডিও পোস্ট করা হয় ভারতীয় সেনার চিনার কর্পস (Chinar Corps)-এর তরফে। আর তারপরই তা ভাইরাল হয়েছে। ওই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, চারিদিকে জমে আছে চাঁই চাঁই বরফ। আর তার মধ্যে দিয়ে রাস্তা তৈরি করে এক বৃদ্ধকে কাঁধে করে বয়ে নিয়ে আসছেন কয়েকজন সেনা জওয়ান। জানা গিয়েছে, ওই বৃদ্ধের নাম গুলাম নবি ঘানি। গত ১৪ জানুয়ারি প্রবল তুষারপাত হয় কুপওয়ারা জেলার লালপোরা এলাকায়। এর জেরে সবাই এলাকা ছেড়ে পালালেও আটকে পড়েন একমাত্র ৭৫ বছরের গুলাম।

[আরও পড়ুন: ‘দেবেন্দ্র সিংকে চুপ করাতেই মামলার তদন্তভার পাচ্ছে NIA’, কটাক্ষ রাহুলের ]

 

পরে এই খবর গিয়ে পৌঁছায় স্থানীয় সেনা ক্যাম্পে। আর তা শুনেই ক্যাম্প থেকে দু কিলোমিটার দূরে অবস্থিত গুলাম নবি ঘানির বাড়িতে গিয়ে পৌঁছান জওয়ানরা। সেখানে গিয়ে ওই বৃদ্ধকে প্রচণ্ড অসুস্থ অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখেন। প্রবল তুষারপাত ও অতিরিক্ত ঠান্ডার কারণে মৃত্যুর পথে এগিয়ে যাচ্ছিলেন তিনি। কিন্তু, ভারতীয় সেনা জওয়ানরা ঠিক সময়ে পৌঁছে তাঁকে উদ্ধার করেন। তারপর দুটি কিলোমিটার রাস্তা কাঁধে করে বয়ে এনে স্থানীয় প্রাথমিক চিকিৎসা কেন্দ্রে ভরতি করেন।

[আরও পড়ুন: বড়সড় সেক্স-ব়্যাকেটের সঙ্গে জড়িত অভিনেত্রী! পর্দাফাঁস মুম্বই পুলিশের ]

 

এর আগে গত বুধবার সকালেও চিনার কর্পসের অফিসিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে একটি ভিডিও পোস্ট করা হয়। তাতে দেখা যায়, ভারতীয় জওয়ানরা গর্ভবতী এক মহিলাকে হাসপাতালে ভরতি করার জন্য বরফের ওপর দিয়ে স্ট্রেচারে চাপিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। প্রায় ৪ ঘণ্টা ধরে হেঁটে ১০০ জন সেনা জওয়ান এবং ৩০ জন সাধারণ মানুষ ওই মহিলাকে হাসপাতালে ভরতি করেন। এই ঘটনার কথা জানার পরেই ওই জওয়ান ও মানুষদের টুইট করে কুর্নিশ জানিয়েছেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং