২ ভাদ্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২০ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২ ভাদ্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২০ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুম্বই থেকে আমেদাবাদ যাবে প্রধানমন্ত্রী মোদির স্বপ্নের বুলেট ট্রেন। তাই বন্যার আশঙ্কাকে হেলায় উড়িয়ে পরিবেশ রক্ষার প্রতিশ্রুতিকে দূরে সরিয়ে রাখা হচ্ছে। কেটে ফেলা হচ্ছে ১৩.৩৬ হেক্টর এলাকাজুড়ে জন্ম নেওয়া ৫৪ হাজার ম্যানগ্রোভ গাছকে। যদিও এই প্রকল্পের ফলে পরিবেশের কোনও ক্ষতি হবে না বলে দাবি করেছে মহারাষ্ট্র সরকার।

[আরও পড়ুন- অর্থাভাবে ধুঁকছে বিএসএনএল, কর্মীদের বেতন দিতে কেন্দ্রের কাছে সাহায্যের আর্তি]

বিজেপির জোটসঙ্গী শিব সেনার বিধায়ক মনীষা কায়ান্দের একটি প্রশ্নের উত্তরে সোমবার একথা জানান রাজ‍্যের পরিবহন মন্ত্রী দিবাকর রাওতে। একটি গাছ কাটা হলে সরকার তার পরিবর্তে পাঁচটি গাছ লাগানোর পরিকল্পনা নিয়েছে বলেও দাবি করেন। বলেন, “বেশি গাছ কাটা হবে না। আর এর জেরে নভি মুম্বইয়ের কোথায় বন‍্যার কোনও আশঙ্কা নেই। ট্রেন প্রকল্পের পিলারগুলি অনেক উঁচু হবে। এর ফলে পরিবেশের বিশেষ কোনও ক্ষতি হবে না। আমি জানতে পেরেছি, উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ পেলে সরকারের হাতে জমি তুলে দিতে কোনও আপত্তি নেই কৃষকদের।”

এপ্রসঙ্গে আরেকটি প্রশ্ন করেছিলেন কংগ্রেসের বিধায়ক শরদ রানপাইস। তার জবাবে রাওতে বলেন, “মুম্বই-আমেদাবাদ বুলেট ট্রেন প্রকল্পের জন্য মোট ১,৩৭৯ হেক্টর জমি অধিগ্রহণ করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে গুজরাটে রয়েছে ৭২৪.১৩ হেক্টর ব‍্যক্তিগত মালিকানাধীন জমি। আর মহারাষ্ট্রে রয়েছে ২৭০.৬৫ হেক্টর। এর মধ্যে পালঘর জেলাতেই রয়েছে ১৮৮ হেক্টর। এখানকার ৩,৪৯৮ জন মানুষের জীবনের উপর সরাসরি এই প্রকল্পের প্রভাব পড়বে।”

[আরও পড়ুন- ধর্ষক রাম রহিমকে প্যারোলে মুক্তি দেওয়ার সুপারিশ হরিয়ানা সরকারের]

বিরোধীদের অভিযোগ, পরিবেশ রক্ষার থেকেও নরেন্দ্র মোদির স্বপ্নপূরণে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে ফড়ণবিস সরকার। তাই বুলেট ট্রেন প্রকল্পের জন্য কয়েক হেক্টর ম্যানগ্রোভের অরণ্য ধ্বংস করতেও হাত কাঁপছে না। তবে শুধু ম্যানগ্রোভের অরণ্যই নয়, এই প্রকল্পের ফলে যাত্রাপথের দু’ধারে থাকা কৃষকরাও ক্ষতিগ্রস্ত হবেন বলে আশঙ্কা পরিবেশবিদদের।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং