BREAKING NEWS

০২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ১৯ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

চুক্তি স্বাক্ষর মোদি-পুতিনের, ভারতের হাতে উঠল এস-৪০০ মিসাইল

Published by: Tanujit Das |    Posted: October 5, 2018 7:23 pm|    Updated: October 5, 2018 7:23 pm

India-Russia signed S-400 missile deal

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আরও আশঙ্কা ও আতঙ্ক বাড়ল আমেরিকা, পাকিস্তান ও চিনের পক্ষে৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের উপস্থিতিতে ঐতিহাসিক এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র সংক্রান্ত চুক্তি স্বাক্ষর করল ভারত ও রাশিয়া৷ শুক্রবার এই চুক্তি স্বাক্ষর করেন দুই রাষ্ট্রনেতা৷ স্বাক্ষর হয় আরও আটটি চুক্তি৷ এরপর যৌথ সাংবাদিক সম্মেলনে দুই দেশের মধ্যে বেড়ে ওঠা কূটনৈতিক সম্পর্কের বিষয়ে নয়া দিশা দেখান তাঁরা৷ ভবিষ্যতের অনেক পরিকল্পনার কথাও তুলে ধরেন৷ এরপর রুশ ও ভারতীয় পড়ুয়াদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন মোদি ও পুতিন৷ তাঁদের সামনে তুলে ধরেন ভারত-রাশিয়া দু’দেশের পারস্পরিক রসায়নের ইতিহাস৷

 

[লোকসভায় আর বিজেপির হয়ে প্রচার করবেন না ‘মোদি’!]

ঐতিহাসিক এই চুক্তির ফলে প্রায় ৫০০ কোটি ডলারের বিনিময়ে পাঁচটি সুবিশাল এস-৪০০ ট্রায়াম্ফ ক্ষেপণাস্ত্র আসতে চলেছে ভারতের অস্ত্রাগারে৷ মাটি থেকে আকাশ পথে শত্রুপক্ষকে এবার নিমেষে ধ্বংস করে দিতে পারবে ভারতীয় সেনা৷ ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ৪০ হাজার কোটি টাকার প্রতিরক্ষা চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন পুতিন ও মোদি। এছাড়াও, আরও আটটি গুরুত্বপূর্ণ চুক্তি ও মউ স্বাক্ষর করেছেন দুই দেশের রাষ্ট্রনেতা৷ দুই দেশের বিদেশমন্ত্রকের মধ্যে স্বাক্ষর হয় ‘প্রটোকল ফর কনসালটেশন’ নামক একটি মউ৷ সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করে রুশ অর্থমন্ত্রক ও ভারতের নীতি আয়োগ এবং ভারতের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ও রুশ মহাকাশ গবেষণা সংস্থা৷ পারমাণবিক শক্তি, রেল, ক্ষুদ্র শিল্প ইত্যাদি ক্ষেত্রেও মউ স্বাক্ষর হয় দুই দেশের মধ্যে৷

[সাময়িক স্বস্তি রাম রহিমের, জামিন পেলেন ধর্ষক ধর্মগুরু]

এরপর যৌথ সাংবাদিক সম্মেলন করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন৷ সাংবাদিকদের সামনে দু’দেশের মধ্যেকার সম্পর্কের ঐতিহাসিক মূল্যবোধ উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ তিনি বলেন, সন্ত্রাসবাদ ও আফগানিস্তানের মতো ইস্যুতে পরস্পর পরস্পরকে সাহায্যের মাধ্যমেই উন্নতি ও প্রগতির রাস্তায় এগোতে পারবে ভারত ও রাশিয়া৷ এসসিও, ব্রিকস, জি২০ ও আসিয়ানেও এই একই সহযোগিতা বজায় রাখা হবে৷ এরপরেই বক্তব্য রাখেন রুশ প্রেসিডেন্ট৷ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ভ্লাদিভস্টক ফোরামে প্রধান অতিথি হিসাবে আমন্ত্রণ জানান তিনি৷ পাশাপাশি, দুই রাষ্ট্রনেতার মধ্যে সিরিয়া ও ইরান প্রসঙ্গেও কথাবার্তা হয় বলে সূত্রের খবর৷ এরপর ভারত ও রুশ পড়ুয়াদের উদ্দেশ্যে বিবৃতি দেন দুই রাষ্ট্রনেতা৷ তাঁদের সামনে তুলে ধরেন দুই দেশের ঐতিহাসিক মূল্যবোধের কাহিনি৷ এরপর ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দের সঙ্গেও বৈঠক করেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে