BREAKING NEWS

৩০ আশ্বিন  ১৪২৮  রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

নেপাল-চিন সীমান্তে ইয়েতি! পায়ের ছাপের ছবি পোস্ট করে দাবি সেনার

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: April 30, 2019 11:01 am|    Updated: May 2, 2019 1:57 pm

Indian Army finds the abominable snowman in the Himalayas.

সংবাদ প্রতিদিন ডি়জিটাল ডেস্ক: কাকাবাবুর ইয়েতি অভিযান বা তিব্বতে গিয়ে টিনটিনের ইয়েতির খপ্পরে পড়া। এতদিন অনেক গল্পের বইয়ে রহস্যময় ওই তুষারমানবের কথা উল্লেখ করা হলেও এবার তার পায়ের ছাপ দেখতে পাওয়া গিয়েছে বলে দাবি করল ভারতীয় সেনা৷ টুইটারে রহস্যময় সেই ছবি প্রকাশও করেছে তারা।

পাশাপাশি জানানো হয়েছে, গত ৯ এপ্রিল নেপাল-চিন সীমান্তে অবস্থিত মাকালু বেস ক্যাম্পের কাছে ওই রহস্যময় প্রাণীর পায়ের ছাপ চোখে পড়ে ভারতীয় সেনার পর্বতারোহী দলের। তারপর ৩২x১৫ ইঞ্চির ওই পায়ের ছাপের ছবি তুলে টুইটারে পোস্টও করা হয় তাদের পক্ষ থেকে। যদিও এরপরই নেটিজেনরা ভারতীয় সেনার টুইটার অ্যাকাউন্ট হ্যাক হয়েছে বলে সন্দেহ প্রকাশ করেন। কেউ কেউ আবার মনে করেন, নিছক মজা করার জন্যই ভারতীয় সেনার তরফে ওই ছবি পোস্ট করা হয়েছে। কেউ প্রশ্ন তোলেন, কেন মাত্র একটাই পায়ের ছাপের ছবি পোস্ট করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ‘গরম বাড়লেই বিদেশে পালান রাহুল’, ‘অজ্ঞাতবাস’ নিয়ে কটাক্ষ অমিত শাহ’র]

অতীতে মাকালু-বারুন ন্যাশনাল পার্কে ইয়েতির দেখা পাওয়া গিয়েছে বলে কেউ কেউ দাবি করলেও তা বিশ্বাসযোগ্য মনে হয়নি কারোর। কিন্তু, এবার ভারতীয় সেনার পক্ষ থেকে ওই রহস্যময় পায়ের ছাপের ছবি পোস্ট করে সেটি ইয়েতির বলে দাবি করার পর পরিস্থিতি বদলে গিয়েছে।

[আরও পড়ুন- বিয়ের আসরে কনেকে ফেলে PUBG-তে মজে বর! ভাইরাল ভিডিও]

বহুদিন থেকেই হিমালয়ের পাহাড়চূড়ায় থাকা বাসিন্দারা বা পর্বতারোহীদের অনেকে রহস্যময় ওই তুষারমানব সম্পর্কে আলোচনা করছেন। কিন্তু, এর অস্তিত্ব সম্পর্কে কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি। কেউ কেউ হিমালয়ের বরফে থাকা সুবিশাল পায়ের ছাপের ছবি পোস্ট করলেও বিজ্ঞান তাকে স্বীকৃতি দেয়নি। যদিও নেপালের বাসিন্দাদের অনেকে মনে করেন, হিমালয়, সাইবেরিয়া, মধ্য ও পূর্ব এশিয়ায় ইয়েতি রয়েছে৷ কেউ দাবি করেন, তিনি ইয়েতি দেখেছেন৷ যদিও বিজ্ঞানীদের ধারণা, ওই সব ক্লান্ত অভিযাত্রীদের চোখের ভুল৷ তবে এখন ভারতীয় সেনার পক্ষ থেকে ওই রহস্যময় তুষারমানবের পায়ের ছাপ ছবি পোস্ট করার পর নড়েচড়ে বসেছে সবাই। বিজ্ঞান না মানলেও ইয়েতির খোঁজে তল্লাশি চালাতে তাই পর্বতারোহীর সংখ্যা বাড়ছে নেপাল-চিন সীমান্তে।

এপ্রসঙ্গে বিখ্যাত পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্ত বলেন, ” স্যার এডমন্ড হিলারি এবং তেনজিং নোরগে এভারেস্ট অভিযানের সময় এই ধরনের বেশ কিছু পায়ের ছাপ দেখেছিলেন।এমনকী তেনজিং তাঁর বাবা দুবার ইয়েতি দেখেছিলেন বলে দাবিও করেছিলেন। ১৯৬০ সালে হিলারি হিমালয়ে এসে খুমিয়াং মনাস্ট্রি থেকে একটি প্রাণীর মাথার খুলি এবং কিছু লোমও সংগ্রহ করেন। যদিও তা পরীক্ষা করে জানা যায় যে সেটি এক ধরনের হিমালয়ান অ্যান্টিলোপের দেহাংশ। পরে তেনজিং-ও ভুল বলেছিলেন বলে স্বীকার করেন। এখন ভারতীয় সেনার পক্ষ থেকে যা দাবি করা হচ্ছে তা যদি সত্যি হয় তাহলে খুব ভাল হবে। তবে বিজ্ঞানসম্মত ভাবে এটা প্রমাণ করতে গেলে আরও পর্যবেক্ষণের প্রয়োজন। তাই যেখানে এই পায়ের ছাপ দেখা গিয়েছে তার আশপাশে ক্যামেরা লাগানো হলে প্রমাণ পেতে সুবিধা হবে।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement