BREAKING NEWS

১৭ শ্রাবণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩ আগস্ট ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

রাজ্যের ‘ভোট পরবর্তী হিংসা’র মামলা থেকে সরলেন সুপ্রিম কোর্টের বাঙালি বিচারপতি

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: June 19, 2021 4:50 pm|    Updated: June 19, 2021 5:49 pm

Justice Indira Banerjee said as she recused herself from Post poll violence case | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাজ্যে ভোট পরবর্তী হিংসার অভিযোগে মামলা। সেই মামলা থেকে নিজেকে সরিয়ে নিলেন সুপ্রিম কোর্টের বাঙালি বিচারপতি ইন্দিরা বন্দ্যোপাধ্যায় (Justice Indira Banerjee)। বিচারপতি বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়ে দিয়েছেন,এই মামলাটি তিনি শুনতে চান না।

বিশ্বজিৎ সরকার নামে এক ব্যক্তি সুপ্রিম কোর্টে (Supreme Court) অভিযোগ জানিয়েছিলেন তাঁর ভাই অভিজিৎ সরকার এবং হরণ অধিকারী নামের এক বিজেপি কর্মী বাংলার নির্বাচনের পর তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীদের হাতে খুন হয়েছেন। এই মামলায় সিবিআই তদন্ত চেয়েছেন ওই ব্যক্তি। মৃত বিজেপি কর্মীর স্ত্রীও ওই মামলার পিটিশনকারী। সেই মামলা থেকে নিজেকে সরিয়ে নিয়েছেন বিচারপতি ইন্দিরা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর সংক্ষিপ্ত বক্তব্য, “এই মামলা আমি শুনতে চাই না। আমার কিছু অসুবিধা আছে।” মনে করা হচ্ছে তিনি পশ্চিমবঙ্গের (West Bengal) বাসিন্দা বলেই এই মামলা থেকে সরিয়ে নিয়েছেন নিজেকে। বিচারপতি বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেকে সরিয়ে নেওয়ার পর এই মামলা আপাতত স্থগিত রাখা হয়েছে। এরপর নতুন বেঞ্চ গঠন করে মামলাটি সেই বেঞ্চে পাঠানো হবে। উল্লেখ্য, রাজ্য সরকার আগেই জানিয়ে দিয়েছে, এই মামলায় ইতিমধ্যেই একাধিক পদক্ষেপ করা হয়েছে। খুনের ঘটনায় ইতিমধ্যেই থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। তিন ব্যক্তিকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ‘বাংলায় গণতন্ত্র বিপন্ন, চিন্তা হচ্ছে’, দ্বিতীয় সাক্ষাতেও রাজ্যের পরিস্থিতি নিয়ে শাহকে নালিশ ধনকড়ের]

প্রসঙ্গত, রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনের ফলপ্রকাশের পরই রাজ্যে বিজেপি (BJP) কর্মীরা আক্রান্ত হচ্ছেন বলে অভিযোগ করছে গেরুয়া শিবির। রাজ্যে ভোট পরবর্তী হিংসার অভিযোগ তুলে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানও বয়কট করেন বিজেপি বিধায়করা। রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড় ভোট পরবর্তী হিংসা নিয়ে বহুবার সরব হয়েছেন। এমনকী পরিস্থিতি সরেজমিনে খতিয়ে দেখতে অসম, কোচবিহার, নন্দীগ্রামের মতো এলাকায় গিয়েছিলেন। যদিও, রাজ্য সরকার বারবার দাবি করেছে, রাজ্যে ভোট পরবর্তী হিংসার যে অভিযোগ করা হচ্ছে, তা ভিত্তিহীন। কোথাও কোনও বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটলে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলেও দাবি করেছে রাজ্য সরকার।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement