BREAKING NEWS

১০  আশ্বিন  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রায়ের পুনর্বিবেচনা চেয়ে আদালতে নির্ভয়ার ধর্ষক পবন, ফের পিছোবে ফাঁসির দিন?

Published by: Paramita Paul |    Posted: February 28, 2020 4:27 pm|    Updated: February 28, 2020 5:36 pm

Nirbhaya Case: Pawan Gupta files curative petition before the SC

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মৃত্যুদণ্ড এড়াতে সুপ্রিম কোর্টে কিউরেটিভ আরজি দাখিল করল নির্ভয়ার খুন ও ধর্ষণে সাজাপ্রাপ্ত পবন কুমার গুপ্তা। মৃত্যুদণ্ডের বদলে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আবেদন নিয়ে শুক্রবার শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হয়েছেন তার আইনজীবী। প্রসঙ্গত, ৩ মার্চ নির্ভয়া কাণ্ডের চার আসামীর ফাঁসি হওয়ার কথা। বাকি তিন দোষী মুকেশ কুমার সিং, বিনয় শর্মা ও অক্ষয়ের সমস্ত আইনি সহায়তা পাওয়ার পথ বন্ধ। এবার পবন কিউরেটিভ আরজি জানিয়েছে। এর জেরে ওই চার দোষীর মৃত্যুদণ্ড ফের পিছিয়ে যায় কি না, তার দিকে তাকিয়ে গোটা দেশ।

[আরও পড়ুন: আন্তঃরাজ্য নিরাপত্তা নিয়ে সফল বৈঠক, দিল্লিতে শান্তি ফেরানোর আর্জি মমতার]

২০১২ সালের ডিসেম্বর। সিনেমা দেখে দিল্লিতে বাসে করে বাড়ি ফিরছিলেন প্যারামেডিক্যালের ছাত্রী। সঙ্গে ছিলেন তাঁর বন্ধু। সেই সময় ফাঁকা বাসে তাঁকে গণধর্ষণ করা হয়। যৌনাঙ্গে ঢুকিয়ে দেওয়া হয় লোহার রড। ওই তরুণীর বন্ধুকে বেধড়ক মারধর করা হয়। তারপর একটি নির্জন রাস্তায় চলন্ত বাস থেকে ধাক্কা মেরে ফেলে দেওয়া হয় তরুণী এবং তাঁর বন্ধুকে। বহুক্ষণ পর রক্তাক্ত অবস্থায় দু’জনকে উদ্ধার করা হয়। চিকিৎসায় সাড়া দিতে পারেননি ওই তরুণী। জীবনযুদ্ধে হার মানেন তিনি। এই ঘটনায় প্রতিবাদের আগুন জ্বলে ওঠে গোটা দেশে। গ্রেপ্তার হয় অভিযুক্তরা। কারাগারেই আত্মহত্যা করে এক অভিযুক্ত। বছর সাতেক পর ফাঁসির সাজা ঘোষণা করে সর্বোচ্চ আদালত। তবে এখনও ফাঁসি কার্যকর করা সম্ভব হয়নি। কারণ, একের পর এক অভিযুক্ত ফাঁসি খারিজ এবং ক্ষমাভিক্ষার আবেদন করেই নষ্ট করছে সময়।

[আরও পড়ুন : সবচেয়ে উঁচু মন্দিরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন, পাতিদার সম্প্রদায়ের উৎসব ঘিরে জমজমাট গুজরাট]

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি নির্ভয়ার চার ধর্ষক ও খুনির জন্য নতুন ফাঁসির দিন ধার্য করে দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্ট। ৩ মার্চ সকাল ছটায় তাদের ফাঁসিতে ঝোলানো হবে বলে নয়া পরোয়ানা জারি করেছে আদালত। চার দোষীর মধ্যে তিনজনেরই আইনি সহায়তা পাওয়ার সমস্ত পথ বন্ধ হয়ে গিয়েছে। আবার দিল্লি হাই কোর্টের দেওয়া সাতদিনের সময়সীমাও শেষ হয়ে গিয়েছে। এর আগে দু’বার মৃত্যু পরোয়ানা জারি হওয়ার পরও তা শেষমুহূর্তে খারিজ হয়েছে। ফলে পিছিয়ে গিয়েছে চারজনের মৃত্যুদণ্ড।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে