১৭ চৈত্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ৩১ মার্চ ২০২০ 

Advertisement

‘CAA নিয়ে ভয়ের কিছুই নেই’, উদ্ধবের মন্তব্যে মহারাষ্ট্রের জোটে ফাটল স্পষ্ট

Published by: Paramita Paul |    Posted: February 18, 2020 2:56 pm|    Updated: February 18, 2020 2:56 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মহারাষ্ট্রের জোটের ফাটল ক্রমশ চওড়া হচ্ছে। ভীমা-কোরেগাঁও মামলার পর এবার NRC-NPR-CAA নিয়ে উদ্ধব ঠাকরে-শরদ পওয়ার মতপার্থক্য প্রকাশ্যে। একদিকে উদ্ধব ঠাকরে যখন সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (CAA) কার্যকরে কোনও বিপদ দেখছেন না। রাজ্যজুড়ে NPR কার্যকর করতেও আপত্তি নেই তাঁর। ঠিক তখন সম্পূর্ণ ভিন্নমত প্রকাশ করছেন জোটের মূল কান্ডারী এনসিপি প্রধান শরদ পওয়ার। তাঁর কথায়, CAA-র বিরুদ্ধে আগেই আমরা ভোট দিয়েছিলাম। সেই অবস্থানে এখনও অনড়। ফলে মহারাষ্ট্রে CAA কার্যকর করা হলে সরকারের জোটসঙ্গীদের সঙ্গে শিব সেনার ফাটল যে চওড়া হবে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

 

[আরও পড়ুন : ‘ভারত বিরোধী’ কাজে জড়িত ব্রিটিশ সাংসদ, বিতর্কের জবাবে জানাল নয়াদিল্লি]

CAA নিয়ে উদ্ধবের দাবি, “এই আইন নিয়ে কারোর ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই। NRC-CAA সম্পূর্ণ আলাদা দু’টি বিষয়। NRC কার্যকর করা হচ্ছে না।” এদিন তিনি NPR-এর সমর্থনেও মুখ খোলেন। শিব সেনা প্রধান তথা মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, “NPR স্রেফ লোকগণনা। মহারাষ্ট্র NPR আটকাবে না। প্রতি ১০ বছরে জনগণনা হলে কারোর কোনও ক্ষতি হবে না।” তবে মহারাষ্ট্রে NRC চালু হবে না বলেই জানিয়েছেন তিনি। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, “NRC চালু হলে শুধুমাত্র হিন্দু বা মুসলিম নয়, আদিবাসীরাও ক্ষতিগ্রস্ত হবেন।”

[আরও পড়ুন : সেনায় মহিলাদের সমান অধিকার, কৃতিত্ব নিয়ে টুইট যুদ্ধে স্মৃতি-রাহুল]

এদিকে উদ্ধবের মতের বিরোধিতা করেছেন NCP প্রধান শরদ পওয়ার। তাঁর কথায়, মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের নিজস্ব মতামত থাকতেই পারে। কিন্তু আমরা এর বিরুদ্ধে। এর বিরুদ্ধে ভোটও দিয়েছি।” প্রসঙ্গত, লোকসভায় সংশোধিত নাগরিকত্ব বিলের স্বপক্ষে ভোট দেন শিব সেনার সাংসদেরা। তবে মহারাষ্ট্র সরকারের বাকি সঙ্গীদের আপত্তি থাকায় রাজ্যসভায় তাঁরা ওয়াক আউট করেছিলেন। কিন্তু এখন ফের একবার এই আইনের স্বপক্ষে সওয়াল করলেন উদ্ধব ঠাকরে। যা ফের বিতর্ক তৈরি করেছে। 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement