১১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

প্রণব মুখোপাধ্যায়ের আত্মজীবনী প্রকাশ নিয়ে বিবাদ তুঙ্গে, দুই সন্তানের টুইট যুদ্ধ

Published by: Paramita Paul |    Posted: December 15, 2020 6:42 pm|    Updated: December 15, 2020 6:53 pm

Pranab Mukherjee's Son and Daughter fights over his Memoir third part | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রণব মুখোপাধ্যায়ের (Pranab Mukherjee) আত্মজীবনীর তৃতীয় খণ্ড প্রকাশ ঘিরে বিবাদে জড়ালেন তাঁর দুই সন্তান। বই ছাপা বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়ে টুইট করেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির ছেলে অভিজিৎ মুখোপাধ্যায়। পালটা টুইট করেন মেয়ে শর্মিষ্ঠা মুখোপাধ্যায়ও।

টুইটারে দাদাকে খোঁচা দিয়ে তিনি লেথেন, বই ছাপায় কোনও বাঁধা দেওয়ার চেষ্টা কর না। বাবা অসুস্থ হওয়ার আগেই বইয়ের পান্ডুলিপি চূড়ান্ত হয়ে গিয়েছিল। সবমিলিয়ে ফের একবার খবরের শিরোনামে প্রণব মুখোপাধ্যায়ের আত্মজীবনীর তৃতীয় খণ্ড ‘দ্য প্রেসিডেন্সিয়াল ইয়ারস’ (The presidential Years)।

[আরো পড়ুন : ‘বিজেপিই আসল টুকরে টুকরে গ্যাং’, কটাক্ষ অকালি দলের প্রধান সুখবীর সিং বাদলের]

দিন কয়েক ধরেই প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের আত্মজীবনী প্রকাশ ঘিরে বিতর্ক দানা বাঁধছিল। প্রণববাবু তাঁর লেখায় কংগ্রেসের ক্ষমতাচ্যুত হওয়ার জন্য সোনিয়া গান্ধী ও মনমোহন সিংকে দায়ী করেছেন বলে খবর ছড়িয়েছে। এই বিতর্ক তৈরি হওয়ার দরুণই বইটির ছাপা বন্ধ করতে চেয়েছেন অভিজিৎ মুখোপাধ্যায়।

মঙ্গলবার এ বিষয়ে তিনি টুইটারে লেখেন, “আমি ‘দ্য প্রেসিডেন্সিয়াল মেমোয়ার্স’-এর লেখকের ছেলে বলছি, দয়া করে ওই আত্মজীবনী প্রকাশ করা বন্ধ করুন। আমার লিখিত অনুমতি ছাড়াই কিছু মিডিয়া বইটির বিশেষ কিছু অংশ ছাপাচ্ছে, যা উদ্দেশ্যপ্রণোদিত।” ইতিমধ্যে তিনি প্রকাশককেও চিঠি দিয়েছেন বলে খবর। তাঁর কথায়, “এখন বাবা বেঁচে নেই, তাই বই প্রকাশ হওয়ার আগে আমার একবার পড়ে দেখা উচিৎ।”

[আরো পড়ুন : কৃষক বিক্ষোভের জেরে দিনে সাড়ে ৩ হাজার কোটির ক্ষতি! সমস্যা দ্রুত মেটাতে চিঠি বণিকসভার]

দাদার এই দাবি অবশ্য খারিজ করে দিয়েছেন বোন শর্মিষ্ঠা মুখোপাধ্যায়। রীতিমতো দাদাকে কটাক্ষ করে তিনি লেখেন, “দাদা, বইটার নাম দ্য প্রেসিডেন্সিয়াল মেমোয়ার্স নয়, দ্য প্রেসিডেন্সিয়াল ইয়ারস।” তিনি তাঁর দাদাকে উদ্দেশ্য করে আরও লেখেন, “দ্য প্রেসিডেন্সিয়াল ইয়ারস-এর লেখকের মেয়ে আমি। আমি আমার দাদাকে বলছি, অযথা বই ছাপায় বাধা দিও না। বইটির চূড়ান্ত খসড়ায় বাবার লেখা নোট ও কমেন্ট রয়েছে। ওই মতামত বাবার একান্ত ব্যক্তিগত। তাই সস্তার প্রচার পাওয়ার জন্য কারোর বই ছাপা আটকানো উচিৎ নয়।” সবমিলিয়ে প্রকাশিত হওয়ার আগেই ফের খবরের শিরোনামে প্রণববাবুর আত্মজীবনীর তৃতীয় খণ্ড।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে