BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

ফ্রন্টলাইনার স্বাস্থ্যকর্মীদের বেতন সময়মতো দিতেই হবে, কড়া বার্তা সুপ্রিম কোর্টের

Published by: Paramita Paul |    Posted: July 31, 2020 6:01 pm|    Updated: July 31, 2020 8:28 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মহামারী আবহে দেশবাসীকে বাঁচাতে সামনের সারিতে দাঁড়িয়ে লড়াই করছেন চিকিৎসক (Doctor) ও স্বাস্থ্যকর্মীরা (Health Workers)। অথচ তাঁদের একাংশ সময়মতো বেতন পাচ্ছে না। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের বেতন মেটাতে হবে কেন্দ্র নির্দেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। যদিও কেন্দ্রের তরফে কয়েকটি রাজ্য নাম করে বলা হয়, তাঁরা সঠিক সময় বেতন মেটাচ্ছে না। সে কথা শুনতে চায়নি শীর্ষ আদালত। বরং বিচারপতিদের সাফ কথা, নির্দেশ মানছে না বলে হাত-পা গুটিয়ে বসে থাকতে পারেন না আপনারা। আপনাদের নির্দেশ মানানোর ক্ষমতা আছে।

১৫ মে United Resident Doctors Association-এর তরফে আদালতে মামলা করা হয়। অভিযোগ, কেন্দ্রের তরফে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইন বাধ্যতামূলক নয়। আর তাঁরা কোয়ারেন্টাইনে থাকলে ওই ১৪ দিনের বেতন কাটা হচ্ছে। কারণ ওই দিনগুলিকে ছুটি হিসেবে ধরা হচ্ছে। এর বিরুদ্ধে চিকিৎসকরা শীর্ষ আদালতে যান। সেই মামলার সঙ্গেই বেতন আটকে রাখার বিষয়টিও যুক্ত হয়। সেই ইস্যুতেই শুক্রবার সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহতাকে কার্যত ভর্ৎসনা করা হয়।

[আরও পড়ুন : গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে রেকর্ড সংক্রমণ, মাত্র দু’দিনে করোনা আক্রান্ত লক্ষাধিক]

তিনি কেন্দ্রের তরফে যুক্তি দিয়ে বলা চেষ্টা করেন যে, বেতন নিয়ে ইতিমধ্যে সার্কুলার পাঠিয়েছে কেন্দ্র। বিপক্ষের আইনজবীবী পালটা দাবি করে বসেন, সারকুলার জারি করেও কোনও লাভ হয়নি। বহু ক্ষেত্রে বেতন আটকে আছে। এদিন কেন্দ্রের তরফে মহারাষ্ট্র, কর্ণাটক, ত্রিপুরার নাম করে বলা হয় এই রাজ্যগুলি বেতন মেটাচ্ছে না। কেন্দ্রের অভিযোগ অবশ্য ধোপে টেকেনি।

এদিন বিচারপতিরা সাফ জানিয়ে দেন, স্বাস্থ্যকর্মীরা যাতে সময়ের মধ্যে বেতন পান, তা কেন্দ্রকে নিশ্চিত করতে হবে। রাজ্যগুলিকে নির্দেশ মানতে বাধ্য করতে হবে কেন্দ্রকেই। এই মামলার আগামী শুনানি ১০ আগস্ট।

[আরও পড়ুন : মহিলার গোপনাঙ্গ থেকে সোয়াব নিয়ে কোভিড পরীক্ষা, হাজতে অভিযুক্ত]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement