BREAKING NEWS

২১ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  বুধবার ৮ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বাবরি ধ্বংসের বর্ষপূর্তিতে কড়া নিরাপত্তা অযোধ্যায়

Published by: Bishakha Pal |    Posted: December 6, 2018 8:57 am|    Updated: December 6, 2018 8:57 am

Security tightened in Ayodhya

অযোধ্যায় মোতায়েন করা হয়েছে প্রায় ২৫ হাজার পুলিশ।

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাবরি মসজিদ ধ্বংসের বর্ষপূর্তির দিন শহরে বড়সড় অশান্তির আশঙ্কা করছে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ। ২৬ বছর আগে এই দিনটিতেই ধ্বংস হয়েছিল বাবরি মসজিদ। সেই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এবছর ফের যাতে কোনও অশান্তি না ছড়ায় তার জন্য কোমর বেঁধে ময়দানে নেমে পড়েছে পুলিশ ও প্রশাসন। অযোধ্যা শহর-সহ গোটা এলাকা কড়া নিরাপত্তায় মুড়ে ফেলা হয়েছে। প্রশাসনের তরফে পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, পরিস্থিতি বেগতিক দেখলেই যেন পদক্ষেপ নেয় তারা। গ্রেপ্তারের ক্ষেত্রেও পুলিশকে দেওয়া হয়েছে সবুজ সংকেত।

প্রতিবছর ৬ ডিসেম্বর দিনটিকে বিশ্ব হিন্দু পরিষদ ও বজরং দল ‘শৌর্য দিবস’ ও ‘বিজয় দিবস’ হিসেবে পালন করে। অন্যদিকে মুসলিম সম্প্রদায় দিনটিকে ‘ইয়াম-ই-গম’ (দুঃখের দিন) ও ‘ইয়াম-ই-শ’ (কালা দিবস) হিসেবে পালন করে। দুই সম্প্রদায়ের দুভাবে দিনটি উদযাপনের জন্য অশান্তির আশঙ্কা থেকেই যায়। ফলে অতিরিক্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা মোতায়েন করেছে পুলিশ। তবে পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, দুই সম্প্রদায়ের মানুষই যাতে তাদের অনুষ্ঠান ঠিকমতো সম্পন্ন করতে পারে তার জন্য পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। ফৈজাবাদের পুলিশ সুপার অনিল সিং জানিয়েছেন, ফৈজাবাদ-অযোধ্যায় মোতায়েন করা হয়েছে প্রায় ২৫ হাজার পুলিশ। এছাড়া রয়েছে আধা সামরিক বাহিনী ও ব়্যাফ। অযোধ্যা ও তার আশপাশের অঞ্চলে রয়েছে বহুস্তরীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা। হোটেল ও ধর্মশালাগুলিতেও তীক্ষ্ণ নজর রাখা হচ্ছে। অনুমান, যদি কেউ এলাকায় অশান্তি ছড়াতে চায়, তবে পরিকল্পনা ছকার জন্য হোটেলগুলি তাদের কাছে সেরা জায়গা। এছাড়া অযোধ্যায় যেক’টি গাড়ি ঢুকবে, তার প্রতিটিতেই চেকিং করা হবে বলে খবর। গাড়ি পরীক্ষার জন্য ব্যবহার করা হবে বম্ব ডিটেকটর মেশিনও।

টিআরএস আসলে আরএসএস, তেলেঙ্গানায় বিজেপিকে তোপ রাহুলের ]

এত নিরাপত্তা সত্ত্বেও কিন্তু অশান্তি ছড়ানোর আশঙ্কা উড়িয়ে দিচ্ছে না পুলিশ। বুধবার হিন্দু সমাজ পার্টির চারজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। রাম জন্মভূমি থানা এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। অভিযোগ, বৃহস্পতিবার এলাকায় অশান্তি ছড়ানোর জন্য আঁটঘাট বেঁধে তৈরি হচ্ছিল তারা। এখনও পর্যন্ত অশান্তি ছড়ানোর অভিযোগে আটজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তার উপর ২০১৯ সালে লোকসভা নির্বাচনের আগে ক্রমশ মাথাচারা দিয়ে উঠছে রাম মন্দির ইস্যু। ফলে গোলমালের আশঙ্কা আরও জোরদার হচ্ছে। তাই নিরাপত্তা ব্যবস্থায় কোনও খামতি রাখতে চায় না পুলিশ৷

চপার কেলেঙ্কারির মিডলম্যান মিশেলের ৫ দিনের সিবিআই হেফাজত ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে