১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  সোমবার ৩০ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

কংগ্রেস শাসিত রাজ্যে ধর্ষণ হলে চুপ থাকেন কেন? বিজেপির কটাক্ষের জবাব দিলেন রাহুল

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: October 25, 2020 11:02 am|    Updated: October 25, 2020 11:02 am

An Images

স্টাফ রিপোর্টার: শুধুমাত্র রাজনৈতিক ফায়দা তোলার জন্য প্রতিবাদ করে কংগ্রেস। বিজেপি শাসিত কোনও রাজ্যে ঘটনা ঘটলে ছবি তুলতে হাজির হয়ে যান রাহুল-প্রিয়াঙ্কারা। শনিবার বিজেপির একাধিক নেতামন্ত্রী একযোগে এভাবেই আক্রমণ শানিয়েছিলেন কংগ্রেসকে (Congress)। তাঁদের হাতিয়ার ছিল পাঞ্জাবের হোসিয়ারপুরে ছ’বছরের শিশুকে ধর্ষণ ও খুনের ঘটনা। যেটা কিনা কংগ্রেসের অস্বস্তি বাড়িয়েছে। দিনভর বিজেপির নেতানেত্রীদের কটাক্ষের পর রাতে রাহুল গান্ধী (Rahul Gandhi) আসরে নামলেন এর জবাব দিতে। দাবি করলেন, বিজেপি (BJP) শাসিত রাজ্যের মতো কংগ্রেস শাসিত রাজ্যগুলি অপরাধীদের আড়াল করার চেষ্টা করে না। তাই প্রতিবাদের প্রয়োজন পড়ে না।

প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি এক টুইটে লিখলেন, ‘উত্তরপ্রদেশের মতো পাঞ্জাব বা রাজস্থান সরকার বালিকাটি ধর্ষিতা হয়েছে বলে অস্বীকার করেনি। তার পরিবারকে হুমকি দিয়ে ন্যায়বিচার পাওয়ার সুযোগ বন্ধ করার চেষ্টা করেনি। যদি তারা করে, নিশ্চিতভাবেই সেখানে গিয়ে ন্যায়বিচারের স্বার্থে লড়াই করব।’ রাহুল একা নন, কংগ্রেসের অন্য নেতানেত্রীরাও পালটা বিজেপিকে আক্রমণে নামেন। সাংবাদিক সম্মেলন করেন সর্বভারতীয় মহিলা কংগ্রেস দলনেত্রী তথা জাতীয় কংগ্রেসের অন্যতম মুখপাত্র সুস্মিতা দেব। হাথরস ও হোসিয়ারপুরের ঘটনার আটটি পার্থক্য তুলে ধরেন তিনি। পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিংয়ের বক্তব্য, “আমাদের সরকার যেভাবে দ্রুততার সঙ্গে এই ঘটনায় হস্তক্ষেপ করেছে, তা কি উত্তরপ্রদেশের বিজেপি সরকার করেছিল? সংবিধান মেনে তদন্ত চালু হয়েছে। তাই উকিল, মানবাধিকার রক্ষা বা অন্য কোনও সংগঠনকেও রাস্তায় নামতে হয়নি।”

[আরও পড়ুন: পাঞ্জাবে দলিত শিশুকন্যার ধর্ষণ নিয়ে রাহুল গান্ধী মৌন কেন, তোপ নির্মলার]

উল্লেখ্য, গতকাল সকালেই কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ (Nirmala Sitharaman) হাথরাস কাণ্ডের প্রতিবাদ নিয়ে কংগ্রেসকে তীব্র আক্রমণ শানান। তাঁর বক্তব্য, বিজেপি শাসিত রাজ্যে ধর্ষণ-খুন হলেই চোখে জল। আর কংগ্রেস শাসিত রাজস্থান-পাঞ্জাবে তা হলে চোখেই পড়ে না গান্ধীদের। নির্মলা বলেন, “ভাই-বোন এখন কেন পাঞ্জাবে যাচ্ছেন না? ওখানে গিয়ে কেন ঘটনার নৃশংসতার বিরুদ্ধে আওয়াজ তুলছেন না? টুইটারে অভ্যস্ত রাহুলের হাত থেকে একটিও শব্দ বের হল না এখনও। শুধু এখানেই নয়, নিজেদের শাসিত রাজ্যের কোনও ঘটনাতেই ওদের বক্তব্য পাওয়া যায় না। অথচ অন্য রাজ্যে কিছু হলে, কাঁদতে থাকে। এই ধরনের রাজনীতি আমাদের দেশে চলে না। বিজেপি ওই পরিবারকে সুবিচার দিতে যা যা করার, সব করবে।” নির্মলার সেই কটাক্ষেরই জবাব দিলেন রাহুল।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement