২  ভাদ্র  ১৪২৯  বুধবার ১৭ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

আচমকা হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ল মুম্বইয়ের চারতলা বাড়ি, মৃত অন্তত ১০, আটকে বেশ কয়েকজন

Published by: Kishore Ghosh |    Posted: June 28, 2022 4:38 pm|    Updated: June 28, 2022 6:30 pm

Three dead and 13 injured after a four-storey building collapses in Kurla | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মুম্বইয়ের (Mumbai) কুরলায় চারতলা বাড়ি ভেঙে পড়ে (Building collapsed) মৃত্যু হল ১০ জনের। এই দুর্ঘটনায় ১৩ জন আহত হয়েছে বলে প্রশাসনিক সূত্রে খবর। সোমবার গভীর রাতে আচমকাই ওই চারতলা বাড়িটি হুড়মুড় করে ভেঙে পড়ে। ধ্বংসস্তূপের নীচে চাপা পড়েন বাসিন্দারা। তাতেই ১০ ব্যক্তির মৃত্যু হয়। মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা। ভেঙে পড়া বাড়ির নীচে এখনও অনেকে আটকে রয়েছে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। উদ্ধার কাজ চালাচ্ছে পুলিশ, দমকল ও বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী।

সোমবার রাতে কুরলার নায়েক নগরে ভয়ংকর ঘটনাটি ঘটে। হুড়মুড় করে ভেঙে পড়ে একটি চারতলা বাড়ি। দ্রুত ১৩ জনকে দ্রুত উদ্ধার করা হয়। বিএমসি কমিশনার ইকবার এস চাহাল জানিয়েছেন, ১৩ জনের মধ্যে ৯ জনকে প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। বাকিরা গুরুতর আহত হওয়ায় তাঁদের চিকিৎসা চলছে হাসপাতালে। বিএমসি কমিশনার বলেন, “১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। ৪ জনের চিকিৎসা চলছে হাসপাতালে। ৯ জনকে প্রথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।” তিনি আরও জানান, দমকলের অনুমান এখনও ৭-৮ জন ধ্বংসস্তূপের নীচে আটকে রয়েছেন। পুলিশের ধারণা ভেঙে পড়া বাড়িটির নীচে এর চেয়েও বেশি লোক আটকে থাকতে পারেন।

[আরও পড়ুন: কলেজের সব ছাত্রীকে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার নির্দেশ! বিপাকে পড়ে ইস্তফা অধ্যক্ষের]

ঘটনার খবর পাওয়া মাত্র উদ্ধার কাজ শুরু করে দিয়েছিল পুলিশ ও দমকল বাহিনী। এইসঙ্গে উদ্ধারকাজে নামে বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী (NDRF)। ধ্বংসস্তূপে আটকে থাকাদের বাঁচাতে এখনও উদ্ধার কাজ চলছে বলে জানিয়েছেন বৃহন্মুম্বই পুরনিগমের কমিশনার। বেসরকারি একটি সূত্র মতে, ওই বহুতলের নীচে ২০ থেকে ২৫ জন চাপা পড়েন। সেক্ষেত্রে আরও ৭-৮ জনের ভেতরে আটকে থাকার কথা। দ্রুত উদ্ধার সম্ভব না হলে তাঁদের মৃত্যু হবে বলেই আশঙ্কা প্রশাসনের।

[আরও পড়ুন: জমজমাট নাটক, গুয়াহাটি ছেড়ে মুম্বই ফিরছেন একনাথ শিণ্ডে]

উল্লেখ্য, এমন সময়ে বহুতলটি ভেঙে পড়ল যখন মহারাষ্ট্র রাজনৈতিক অস্থিরতায় ভুগছে। একনাথ শিণ্ডের নেতৃত্ব গুয়াহাটিতে ঘাঁটি গেড়েছেন শিব সেনার বিদ্রোহী বিধায়করা। এরমধ্যেও মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী সুভাষ দেশাই ঘোষণা করেছেন, দুর্ঘটনায় নিহতদের পরিবারকে ৫ লক্ষ টাকা করে আর্থিক সাহায্য করা হবে। আহতরা বিনামূল্য চিকিৎসা পরিষেবা পাবেন।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে