BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

বর সেজে ঘোড়ায় চেপে মনোনয়ন জমা দিতে গিয়ে বিপাকে প্রার্থী

Published by: Sulaya Singha |    Posted: April 9, 2019 11:52 am|    Updated: April 22, 2019 6:18 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পরনে শেরওয়ানি। মাথায় বরের পাগরি। ঘোড়ার পিঠে চেপে বরের বেশে বরযাত্রীদের সঙ্গে নিয়ে এগিয়ে চলেছেন ব্যক্তি। এতদূর শুনে নিশ্চয়ই ধরে নিয়েছেন কনের বাড়ির পথেই রওনা দিয়েছেন পাত্র। কিন্তু না, বিয়ের কোনও অনুষ্ঠানে নয়। ইনি যাচ্ছেন আসন্ন লোকসভা নির্বাচনের জন্য মনোনয়ন জমা দিতে।

মনোনয়ন জমা দিতে এভাবেও কেউ যায়? সংযুক্ত বিকাশ পার্টির বৈদ্য রাজ কিষানের কীর্তি দেখে অবাক প্রত্যেকেই। শোভাযাত্রায় ব্যান্ডপার্টি একের পর এক হিন্দি গান বাজাচ্ছে। আর রীতিমতো কোমর দোলাচ্ছেন তাঁর দলের সমর্থকরা। আর ঘোড়ায় বরের সাজে রাজকীয় ছাতা মাথায় দিয়েই মনোনয়ন জমা দিতে গেলেন তিনি। কিন্তু বিয়ের সাজে কেন? যুক্তি-সহ উত্তর দিলেন উত্তরপ্রদেশের শাহজাহানপুরের প্রার্থী। বৈদ্য রাজ কিষান বলেন, “আমি রাজনীতির জামাই। আজ আমার বিবাহ বার্ষিকী। আর তাই বরের বেশে সেজেছি। রাজনীতির জামাই হিসেবেই মনোনয়ন জমা দিতে এসেছি।” কিন্তু মজার এই শোভাযাত্রার তাল কাটল যখন পুলিশ এসে বাধা দিল প্রার্থী ও তাঁর দলীয় সমর্থকদের। সদর বাজার এলাকায় এই বর্ণাঢ্য যাত্রা আটকে দেয় পুলিশ। অগত্যা ঘোড়া থেকে নেমে পায়ে হেঁটেই বাকিটা পথ যেতে হয় ‘বর’কে। মনোনয়ন জমা দেওয়ার পর নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে বৈদ্য রাজের গলায় আত্মবিশ্বাসের সুর। বলেন, “২৮ মে-র পর কনে নিশ্চয়ই আসবে।”

[আরও পড়ুন: বিফ বিক্রির অভিযোগ, জোর করে শূকরের মাংস খাওয়ানোর চেষ্টা মুসলিম ব্যক্তিকে]

তবে এই প্রথমবার নয়। এর আগেও ২০১৭ সালে উত্তরপ্রদেশে বিধানসভা নির্বাচনেও সকলকে অবাক করেছিলেন তিনি। শববহনকারী খাটে চেপে মনোনয়ন জমা দিতে গিয়েছিলেন তিনি। এবার এলেন বর সেজে। তবে দেখার, লোকসভা ভোটের ফলাফলের পরও সংযুক্ত বিকাশ পার্টির এই প্রার্থীর মুখের হাসি এতটাই চওড়া থাকে কিনা।

[আরও পড়ুন: ‘বোন বললে ভোটে লড়ব’, নির্বাচনের মুখে বার্তা সঞ্জয় দত্তের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement