BREAKING NEWS

১২ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘আদালত নয়, পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে সিদ্ধান্ত নিক রাজ্য’, সুপ্রিম কোর্টে খারিজ পিটিশন

Published by: Paramita Paul |    Posted: May 15, 2020 1:20 pm|    Updated: May 15, 2020 5:04 pm

An Images

ফাইল ছবি

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে রাজ্যের কোর্টেই বল ঠেলল সুপ্রিম কোর্ট। শুক্রবার আদালতের তরফে জানানো হয়, লকডাউনের মধ্যে পরিযায়ী শ্রমিকদের রাস্তা ধরে হাঁটার বিষয়টির দিকে নজর রাখুক রাজ্যগুলোই। শীর্ষ আদালত কেন এ বিষয় রায় দেবে বা শুনানি করবে!  এনিয়ে দায়ের হওয়া পিটিশন খারিজ করে দেয় শীর্ষ আদালত।
লকডাউনের পর থেকে কেন্দ্র ও রাজ্যগুলির মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে পরিযায়ী শ্রমিকরা। তাঁরা হেঁটে বাড়ি ফেরার পথ ধরেছেন। ফলে কখনও ক্লান্তিতে কখনও আবার দুর্ঘটনায় তাঁদের মৃত্যু হচ্ছে। যা কেন্দ্র ও রাজ্যকে বিড়ম্বনায় ফেলেছে।যাঁরা রাস্তা দিয়ে হেঁটে বাড়ি ফেরার চেষ্টা করছেন সেই পরিযায়ী শ্রমিকদের খাবার ও জল সরবরাহ করা উচিত কেন্দ্রের। এই মর্মে যেন শীর্ষ আদালত রাজ্যগুলিকে নির্দেশ দেয়। এমন আরজি জানিয়ে আদালতে পিটিশন দাখিল করেছিলেন আইনজীবী আলাখ অলোক শ্রীবাস্তব।ওই আইনজীবী মহারাষ্ট্রের সাম্প্রতিক ঘটনার কথাও উল্লেখ করেন, যেখানে একটি মালগাড়ির তলায় চাপা পড়ে মৃত্যু হয় ১৬ জন পরিযায়ী শ্রমিকের।

[আরও পড়ুন: নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বিদ্যুতের খুঁটিতে ধাক্কা ট্রাক্টরের, বিদ্যুতস্পৃষ্ট হয়ে মৃত ১০ শ্রমিক]

তাঁর সেই পিটিশনের শুনানি চলাকালীন শীর্ষ আদালত জানায়, “কোন পরিযায়ী শ্রমিক কখন রাস্তায় হাঁটছে সেদিকে আদালতের খেয়াল রাখা অসম্ভব। রাজ্যগুলিকেই এবিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে দিন। আদালত কেন এগুলো শুনবে বা সিদ্ধান্ত নেবে?” একইসঙ্গে দুর্ঘটনা প্রসঙ্গে এই প্রসঙ্গে সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতিরা বলেন, “যখন কেউ রেললাইনের উপরেই ঘুমিয়ে পড়েন তখন কীভাবে আটকানো যাবে? এমন লোক রয়েছে যারা হেঁটেই চলেছেন এবং কোনও বারণ শুনছেন না। আমরা কীভাবে তাঁদের আটকাতে পারি?” কেন্দ্রের তরফে সলিসিটার জেনারেল তুষার মেহতা সর্বোচ্চ আদালতকে জানান যে, ইতিমধ্যেই পরিযায়ীদের ফেরাতে পরিবহণের ব্যবস্থা করেছে কেন্দ্র।

[আরও পড়ুন: ‘গরিব কল্যাণে নজর দিয়েছে ভারত সরকার’, বিশাল অঙ্কের সাহায্য ঘোষণা বিশ্ব ব্যাংকের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement