BREAKING NEWS

১৪ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ১ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

পছন্দের রঙিন ছবি দিয়ে এবার তৈরি হবে ভোটার কার্ড, সিদ্ধান্ত নির্বাচন কমিশনের

Published by: Sucheta Chakrabarty |    Posted: March 14, 2020 6:27 pm|    Updated: March 14, 2020 6:27 pm

An Images

ছবিটি প্রতীকী

শুভঙ্কর বসু: সোশ্যাল মিডিয়া ছেড়ে এবার ভোটার কার্ডে জায়গা পেতে চলেছে ভোটারদের রঙীন ছবি। নির্বাচন কমিশনের এক সিদ্ধান্তে এই সম্ভাবনার কথাই জানা যায়। এই সিদ্ধান্তে বেজায় খুশি নবীন ভোটাররা। সাদা-কালোর গোমড়া জগৎ থেকে বেরিয়ে এবার সুন্দর হাসিমুখের ছবি দেখা যাবে ভোটার কার্ডে।

এতদিন ভোটারকার্ড দেখলেই দেখা যেত খুব গম্ভীর মুখ করে তাকিয়ে আছেন পাড়ার সবচেয়ে হাসিখুশি লোকটা। কারণ ভোটারকার্ডে ব্যাবহৃত ছবি তোলার সময় সিরিয়াস মুখ করে তাকানোই ছিল প্রধান গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। তবে সেই গম্ভীরতায় ইতি টেনে এবার থেকে নিজেদের ভোটারকার্ডে রঙীন ছবি দিতে পারবেন ভোটাররাই। শুধু ছবির মাপ হতে হবে পাসপোর্ট সাইজের। সানগ্লাস, স্কার্ফ ইত্যাদি দিয়ে চোখমুখ নাক ঢাকা থাকলে চলবে না। মোট কথা বিকৃত মুখের ছবি না থাকলেই হল। তাহলেই তা ব্যবহার করা যাবে নিজের পরিচয়পত্রে। নির্বাচনের কমিশনের এই বৈপ্লবিক সিদ্ধান্তে হাসি ফুটেছে নয়া প্রজন্মের ভোটারদের মুখে।

কারণ, এতদিন যে জমানা ছিল যাতে অনেক সময়ই ভোটার নিজেই তাঁর পরিচয়পত্রের ছবি দেখে ভিরমি খেত। ওই ছবিতে যে নিজেকেই যেন চেনা দায়! ছবি জুড়ে কার্বনের কালির ছোপ। চোয়াল উঁচু করে থাকা ভূতের মতো একটা মুখ। কে বলবে এই ‘তিনি’ যে তিনিই! তবে এখন না জমানায় ভোটাররা অবশ্য হাতে পান ল্যামিনেটেড সচিত্র পরিচয়পত্র। তাতে রয়েছে নির্বাচন কমিশনের হলোগ্রাম। ঝকঝকে হরফে ছাপা তথ্য। আর ভোটারের ‘ব্ল্যাক অ্যান্ড হোয়াইট’ একটি ছবি। তবে আর নয় সাদা-কালোর দুনিয়া এখন থেকে ‘ডিজিটাল’ হচ্ছে সচিত্র ভোটার পরিচয়পত্র বা এপিক কার্ড। তাতে এপিক কার্ডেও যেমন রংয়ের ছোঁয়া থাকবে তেমনই ব্যবহার করা যাবে ভোটারের পছন্দসই রঙিন ছবি। তালিকায় নতুন নাম তোলা ভোটারদের সেই ‘কালার’ এপিক কার্ডই তুলে দেবে নির্বাচন কমিশন। শুধু তালিকায় নাম তোলা ২১ লক্ষ নতুন ভোটারই নন, যাঁরা এপিক কার্ডে সংশোধনের জন্য আবেদন করেছেন তাঁরাও এবার হাতে পাবেন প্লাস্টিক কোটেড এই ডিজিটাল ভোটার কার্ড। নির্বাচন কমিশন সূত্রে খবর, মার্চের তৃতীয় সপ্তাহ থেকেই ডিজিটাল কার্ড বিলি শুরু করবে রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের দপ্তর। প্রথমে শহরে এবং পরে গ্রামের ভোটারদের ধাপে ধাপে হাতে কার্ড তুলে দেওয়া হবে।

[আরও পড়ুন: করোনা আতঙ্ক: ‘অযথা প্যানিক করবেন না’, রাজ্যবাসীকে আশ্বস্ত করলেন মুখ্যমন্ত্রী]

তবে শুধু নবীনরা কেন পুরনো ভোটার কার্ডের মালিকরাও চাইছেন সাদাকালো ছবিওয়ালা ভোটার কার্ডের বদলে নিজের পছন্দসই ছবি দেওয়া রঙিন সচিত্র পরিচয় পত্র পেতে। তবে এক্ষেত্রে খরচ পড়বে মাত্র পঁচিশ টাকা। আট নম্বর ফর্ম পূরণ করে আবেদন করতে হবে। অনলাইনেও এই আবেদন করা যেতে পারে। রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক আরিজ আফতাব জানিয়েছেন, “ডিজিটাল এপিক শুধু রঙিনই হবে না। এতে একটি বারকোডও থাকছে। বারকোড ইলেকশন কমিশনের ইভিপি অ্যাপে স্ক্যান করলে সহজেই নিজের তথ্য জানতে পারবেন ভোটার।”

[আরও পড়ুন: এই অঙ্কেই রাজ্যসভায় যেতে পারেন নির্দল প্রার্থী দীনেশ বাজাজ, আশাবাদী তৃণমূল]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement