BREAKING NEWS

১০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৬ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘অনেক সুযোগ পেয়েও বিহারের জনতার সঙ্গে প্রতারণা করেছেন’, নীতীশকে আক্রমণ লালুর

Published by: Biswadip Dey |    Posted: October 22, 2020 1:05 pm|    Updated: November 10, 2020 12:06 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ২৮ অক্টোবর থেকে শুরু হচ্ছে বিহারের বিধানসভা নির্বাচন (Bihar Assembly Election 2020)। তার আগে সরগরম রাজ্যের ভোট আবহাওয়া। এবার রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী লালুপ্রসাদ যাদব (Lalu Prasad Yadav ) আক্রমণ করলেন মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারকে (Nitish Kumar)। অভিযোগ করলেন, বিহারের মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করেছেন জেডিইউ প্রধান। বৃহস্পতিবার সকালে এক টুইটে লালু আক্রমণ শানিয়ে টুইট করে লেখেন, ‘‘মুখ্য-মৌকা (সুযোগ) মন্ত্রীজি ও উপ মুখ্য-ধোঁকা (প্রতারণা) মন্ত্রীজি, জনগণ আপনাদের অনেক সুযোগ দিয়েছে। আর আপনারা তাদের ধোঁকা দিয়েছেন।’’

আরজেডি প্রধান লালু-পুত্র তেজস্বী যাদব ক’দিন আগেই এক জনসভায় দাবি করেছিলেন, ক্ষমতায় এলে তিনি রাজ্যের ১০ লক্ষ মানুষকে চাকরি দেবেন। তাঁর এই মন্তব্যের পালটা দিয়েছেন নীতীশ। তিনি তেজস্বীকে কটাক্ষ করে জানতে চান, এই দশ লক্ষ মানুষকে চাকরি দেওয়ার টাকাটা কোথা থেকে আসবে। সেগুলি কি জাল টাকা নাকি সেই টাকা আসবে জেল থেকে। সেই সঙ্গে তিনি রাজ্যবাসীর উদ্দেশে জানান, কেউ যেন এই ধরনের বিভ্রান্তিকর প্রতিশ্রুতির প্রলোভনে পা না দেন।

[আরও পড়ুন : মহারাষ্ট্রে বড় ধাক্কা বিজেপির, দেবেন্দ্র ফড়ণবিসকে দুষে দল ছাড়লেন একনাথ খাডসে]

প্রসঙ্গত, পশুখাদ্য কেলেঙ্কারিতে দোষী সাব্যস্ত হয়ে এই মুহূর্তে জেলে রয়েছেন লালুপ্রসাদ। ফলে নীতীশের মন্তব্যের ‘জেল’ খোঁচা স্পষ্টতই লালুকে বিঁধেই দেওয়া। অবশেষে পালটা কটাক্ষ করলেন লালুও। তাঁর করা টুইটটি কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই লাইক করেছেন প্রায় পাঁচ হাজার টুইটেরাত্তি।

জনমত সমীক্ষায় শাসক এনডিএ’র ক্ষমতায় ফেরার ইঙ্গিত মিললেও হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের সম্ভাবনা রয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমারের জনপ্রিয়তাও কমছে বলে মনে করা হচ্ছে। গতকাল এক জনসভায় ভোটপ্রচারের মাঝেই স্লোগান উঠেছিল ‘লালু জিন্দাবাদ’। ফলে মেজাজ হারান বিহারের মুখ্যমন্ত্রী। বক্তৃতা থামিয়ে উপস্থিত জনতাকে রীতিমতো ধমকের সুরে চুপ করান জেডিইউ নেতা। সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, গতবার ৮০ শতাংশ মানুষ নীতীশের কাজে সন্তোষ প্রকাশ করেছিলেন। এবার সেই সংখ্যাটা ৫২ শতাংশে নেমে এসেছে। তবে প্রতিষ্ঠানবিরোধী ভোট ভাগ হয়ে যাওয়াটা নীতীশের পক্ষে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে। এই সরগরম আবহাওয়ায় নীতীশকে আক্রমণ করে লালু আরও জমিয়ে দিলেন ভোটের হাওয়া।

[আরও পড়ুন: বিনা অনুমতিতে প্রবেশ করতে পারবে না সিবিআই! এবার বাংলার পথেই হাঁটল মহারাষ্ট্র]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement