১ শ্রাবণ  ১৪২৬  বুধবার ১৭ জুলাই ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নগরায়নের দাপটে বিপন্ন বন্যপ্রাণ৷ প্রযুক্তির অহরহ ব্যবহার তাদের আরও আঁধারে ঠেলে দিয়েছে৷ জঙ্গল সাফারির নামে ডিজিটাল ক্যামেরায় চোখ লাগিয়ে বন্যপ্রাণীদের পিছু ধাওয়া করে ছবি তোলার হিড়িক চলছে৷ আমজনতার এই প্রবণতাই ভাবিয়ে তুলছে বন্যপ্রাণ বিশেষজ্ঞদের, যাঁদের মধ্যে রয়েছেন চিত্রগ্রাহকরাও৷ তাই তাঁদেরকে সচেতন করার উদ্যোগ নিয়েছে বন্যপ্রাণ সংরক্ষণ সংস্থা ‘শের’৷ সঙ্গে রয়েছে বেঙ্গল চেম্বার অফ কমার্স৷ চিত্র প্রদর্শনীর মাধ্যমে আগামী ৩ জুলাই হবে সেই কাজ৷

[আরও পড়ুন: স্কুলের শৌচালয়ে রক্তাক্ত দেহ, ছাত্রীর রহস্যমৃত্যু ঘিরে চাঞ্চল্য জি ডি বিড়লায়]

ধৃতিমান মুখোপাধ্যায়৷ বিশ্বের অন্যতম ওয়াইল্ড লাইফ ফটোগ্রাফার হিসেবে সুপরিচিত৷ পেশার স্বার্থেই তিনি আলাস্কা থেকে আফ্রিকার জঙ্গলে জঙ্গলে ঘুরে বেড়ান৷ বন্যপ্রাণীদের গতিবিধি যেমন তাঁর নখদর্পণে, তেমনই তাঁর সঙ্গেও ভয়ংকর জীবজন্তুর দারুণ সম্পর্ক৷ ক্যামেরার লেন্সে চোখ লাগিয়ে তাই অনায়াসেই তিনি ধরে ফেলেন ওদের নানা মুড৷ নিজের কাজকর্ম সামলে এই ধৃতিমান মুখোপাধ্যায় এবার আসছেন কলকাতায়৷ আগামী ৩ জুলাই তিনি বেঙ্গল চেম্বার অফ কমার্সের উইলিয়ামসন ম্যাগর হলে নিজের তোলা ছবির প্রদর্শনী৷ সেইসঙ্গে এদিন সন্ধেয় তিনি উপস্থিত থাকবেন, সচেতনতার দূত হয়ে৷ বন্যপ্রাণ আইন এবং সংরক্ষণ নিয়ে সতর্কবার্তা দেবেন৷

‘শের’-এর প্রতিষ্ঠাতা জয়দীপ কুণ্ডুর কথায়, ‘এখন ডিজিটাল ক্যামেরার যুগে যে কেউ হাতে ক্যামেরা পেলে বনে-জঙ্গলে গিয়ে ছবি তোলেন৷ অনেক সময় তাঁদের এই ছবি তোলার হিড়িকে প্রাণীরা বিরক্ত হয়, কিছুটা বিপন্নও বোধ করে৷ আর মানুষজন তাদের এই অনুভূতি বুঝতে পারেন না৷ অসতর্কভাবেই হয়ত ক্ষতি করে বসেন৷ যা নীতিগতভাবে একেবারেই অনুচিত৷ আমরা এই বিষয়েই তাঁদের সচেতন করতে চাই৷’ ছবি তোলার প্রতি ঝোঁক থাকলেই বন্যপ্রাণ নিয়ে কাজ করা সহজ নয়, এই বিষয়ের উপরেই আলোচনা চলবে ৩ জুলাইয়ের অনুষ্ঠানে৷ ক্যামেরায় বন্যপ্রাণীদের ধরে রাখার জন্য কী কী সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে, কোন পথে, কোন নীতি মেনে কাজ কাজ করতে হবে, নিজের অভিজ্ঞতা দিয়ে সেসবই সকলকে বুঝিয়ে দেবেন বিখ্যাত চিত্রগ্রাহক ধৃতিমান মুখোপাধ্যায়৷  

wildlife-photo

বাঘ এবং অন্যান্য বন্যপ্রাণী সংরক্ষণে বেশ কয়েকবছর ধরে ‘শের’ নিজের উদ্যোগে একাধিক কাজ করে চলেছে৷ পাশাপাশি পরিবেশ রক্ষায় সাধারণ মানুষের সঙ্গে মিলেমিশে কাজের ক্ষেত্রে স্বকীয়তার ছাপ রেখেছে এই সংস্থা৷ ৩ তারিখও তেমনই এক সচেতনতামূলক অনুষ্ঠান করতে চলেছে ‘শের’৷ উপস্থিত থাকবেন এরাজ্যের বনবিভাগের আধিকারিকরাও৷ সহযোগী হিসেবে থাকছে বেঙ্গল চেম্বার অফ কমার্স এবং ৬, বালিগঞ্জ প্লেস৷

[আরও পড়ুন: শুশ্রূষার বদলে বৃদ্ধাকে মারধর! সিসিটিভিতে ধরা পড়ল নার্সের নির্মমতা]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং