১ ভাদ্র  ১৪২৬  সোমবার ১৯ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

১ ভাদ্র  ১৪২৬  সোমবার ১৯ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ইডির দপ্তরে পৌঁছলেন প্রসেনজিৎ। ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তের পর এবার ইডির দপ্তরে হাজিরা দিলেন অভিনেতা। শুক্রবার বেলা ১১টা নাগাদ সিজিও কমপ্লেক্সে যান প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। তবে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের আধিকারিকদের সঙ্গে দেখা করার আগে কিছু বলেননি অভিনেতা। হাত নাড়তে নাড়তে কমপ্লেক্সের ভিতর ঢুকে যান তিনি। রোজভ্যালি সংস্থার সঙ্গে তাঁর আর্থিক লেনদেন ও চুক্তি নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে বলে সূত্রের খবর।

[ আরও পড়ুন: ‘দাবাং ৩’ দিয়েই বলিউডে পদার্পণ মহেশ মঞ্জরেকরের মেয়ের, কী বললেন বাবা? ]

দিনকয়েক আগে অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়কে সমন পাঠিয়েছিল এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট। ১৯ জুলাই বেলা ১২টার মধ্যে সিজিও কমপ্লেক্সে হাজিরা দিতে বলা হয়েছিল তাঁকে। রোজভ্যালির বিভিন্ন অনুষ্ঠানে একাধিকবার বিশেষ অতিথির আসনে দেখা দিয়েছে প্রসেনজিৎকে। পাশাপাশি, রোজভ্যালির কর্ণধার গৌতম কুণ্ডুর সঙ্গে জাতীয় পুরস্কার পাওয়া এই অভিনেতার ঘনিষ্ঠতা ছিল কিনা, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এমনকী, ওই সংস্থার সঙ্গে কোনওরকম আর্থিক লেনদেনের সম্পর্ক ছিল কিনা, কেনই বা তিনি ওই অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছিলেন, সেই সম্পর্কিত যাবতীয় বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদের জন্যই প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়কে তলব করা হয়েছে বলে খবর।

বেআইনি অর্থলগ্নি সংস্থার আর্থিক লেনদেনের তদন্ত করতে গিয়ে রোজভ্যালির সঙ্গে একাধিক টলিউড সেলেব্রিটির যোগাযোগের কথা জানতে পারে ইডি। সেই প্রসঙ্গে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই বৃহস্পতিবার তলব করা হয় ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তকে। অভিযোগ, রোজভ্যালির টাকায় বিদেশ ভ্রমণ করেছেন অভিনেত্রী। এছাড়া অভিনেত্রীর সঙ্গে ৭ কোটি টাকা লেনদেনের খবরও রয়েছে ইডির কাছে।

[ আরও পড়ুন: ফের বাবা হলেন অর্জুন রামপাল, পুত্রসন্তানের জন্ম দিলেন গ্যাব্রিয়েলা ]

বৃহস্পতিবার ইডির তলবে সিজিও কমপ্লেক্সে উপস্থিত হয়েছিলেন অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত। প্রায় সাত ঘণ্টা টানা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় তাঁকে। রোজভ্যালির কর্ণধার বেশ কয়েকটি স্বল্প বাজেটের বাংলা সিনেমা কিনেছিলেন মোটা অঙ্কের বিনিময়ে, যা রীতিমতো সন্দেহের ঠেকছে তদন্তকারী অফিসারদের কাছে। এছাড়া রোজভ্যালির কর্ণধার গৌতম কুণ্ডুর সঙ্গে জাতীয় পুরস্কার পাওয়া এই  অভিনেত্রীর ঘনিষ্ঠতা ছিল কিনা, তাও জানতে চাওয়া হয়। ম্যারাথন জেরার পর এদিন সন্ধেয় সিজিও কমপ্লেক্স থেকে বেরোন ঋতুপর্ণা৷ তিনি বলেন, ‘‘তদন্তকারীদের সঙ্গে কথা হয়ে গিয়েছে৷ সমস্ত প্রশ্নের যথাযথ উত্তর পেয়েছেন তাঁরা৷ তদন্তকারীরা আমার উত্তরে সন্তুষ্ট৷ আর আমাকে জিজ্ঞাসাবাদের কোনও সম্ভাবনা নেই৷’’

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং