BREAKING NEWS

১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ভুয়ো টিকা কাণ্ড: ‘BJP’র ষড়যন্ত্রও হতে পারে’, মন্তব্য মুখ্যমন্ত্রীর

Published by: Paramita Paul |    Posted: June 30, 2021 4:01 pm|    Updated: June 30, 2021 4:27 pm

CM Mamata Banerjee hints BJP's hand in Kolkata fake vaccine incident | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কসবার কোভিড জাল টিকা কাণ্ড বিজেপির সাজানো ঘটনাও হতে পারে। ইঙ্গিত দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (CM Mamata Banerjee)। এদিকে প্রতারক দেবাঞ্জন দেবের সঙ্গে একাধিক মন্ত্রীর সঙ্গে ছবি প্রকাশ্যে এসেছে। সঙ্গে সঙ্গে বেড়েছে রাজ্য সরকারের বিড়ম্বনা। সেই ছবিকে হাতিয়ার করে রাজ্য সরকারের দিকে আঙুল তুলেছে বিরোধীরা। এবার এ বিষয়ে মুখ খুললেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী।

বুধবারের সাংবাদিক সম্মেলন থেকে রাজ্যে ভ্যাকসিন সংকট নিয়েও সরব হন মুখ্যমন্ত্রী। তাঁর অভিযোগ, “বাংলার থেকে ছোট রাজ্য বেশি টিকা পাচ্ছে। এ রাজ্য অনেক কম টিকা পাচ্ছে। তবু দেশের মধ্যে গণটিকাকরণে এক নম্বর এই রাজ্য। আমরা তিন কোটি টিকা চেয়েছিলাম, পাইনি।” পাশাপাশি, জাল ভ্যাকসিন কাণ্ডে বিজেপির ষড়যন্ত্র থাকতে পারে বলে ইঙ্গিত করলেন মমতা। তাঁর কথায়, “হিংসার ঘটনা প্রমাণ করতে ভুয়ো ছবি ভাইরাল করা হচ্ছে। কেউ কেউ সেই ছবি ইচ্ছে করে ভাইরাল করছে। এই জাল টিকা কাণ্ডের পিছনেও যে বিজেপির হাত নেই, কে বলতে পারে!”

[আরও পড়ুন: নারদ মামলা: হাই কোর্টে গৃহীত মুখ্যমন্ত্রী-আইনমন্ত্রীর হলফনামা, দিতে হবে জরিমানা]

মন্ত্রীদের সঙ্গে প্রতারক দেবাঞ্জনের ছবি থাকা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “আশপাশে বহু মানুষ ঘুরে বেড়ায়। কে বা কারা আশপাশে আসছে, সবসময় তাঁদের চেনা সম্ভব নয়। ছবি দিয়ে বিচার করা যায় না। ” এ কথা বলতে গিয়ে নিজের এক অভিজ্ঞতার কথা তুলে ধরেন মুখ্যমন্ত্রী। বলেন, “একবার বিমানে করে যাচ্ছিলাম। তিন নম্বর আসনে বসেছিলাম। দেখলাম ২০ নম্বর সিট থেকে জুম করে আমার ছবি তুলেছে। ফটোশপ করা যায় ছবি। যাঁরা প্রতারণা করতে চায় তাঁরা ছবি তুলে রাখে।”  তাঁর কথায়, “ভুয়ো টিকা কাণ্ড একটা বিচ্ছিন্ন ঘটনা। সরকারের কেউ এর সঙ্গে যুক্ত নয়।” পাশাপাশি পুলিশকেও কড়া পদক্ষেপ করতে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

একইসঙ্গে মন্ত্রী তথা কলকাতার পুর প্রশাসক ফিরহাদ হাকিমের পাশে দাঁড়ালেন মুখ্যমন্ত্রী। বললেন, “রাস্তায় বের হলে অনেকে ডাকেন। না শুনে চলে গেলে তো আবার বলবে মেয়র কথা শুনলেন না। কথা বলার সময় কেউ ছবি তুলে রেখেছে ফিরহাদের সঙ্গে।” মুখ্যমন্ত্রীর অভিযোগ, “শুধু বাংলা নয়। একাধিক রাজ্যে এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে। গুজরাটে তো বিজেপির দলীয় কার্যালয় থেকে টিকা দেওয়া হয়েছে। বিজেপির সঙ্গেও অনেকের ছবি রয়েছে। সেই ছবিগুলো কোথায় গেল?” 

[আরও পড়ুন: সমাজসেবার স্বীকৃতি, ‘ডায়না অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন কলকাতার আরুষি]

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে