২৪ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  বুধবার ১১ ডিসেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আড়াই মাসের শিশুকে ভুল টিকা দেওয়ার অভিযোগে সরিয়ে দেওয়া হল লেডি ডাফরিন হাসপাতালের এক নার্সকে। শিশুর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতেই ওই নার্সকে আলিপুরদুয়ারে বদলির সিদ্ধান্ত বলে জানানো হয়েছে। বর্তমানে সুস্থ রয়েছে ওই শিশুটি। 

[আরও পড়ুন: গ্রামে রমরমিয়ে চলছে বেআইনি মদের দোকান, প্রতিবাদে পথ অবরোধ স্থানীয়দের]

ঘটনার সূত্রপাত ২৯ মে। বেলেঘাটার বরফকলের বাসিন্দা আড়াই মাসের অবন্তিকা সিংকে ভুল টিকা দেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল কলকাতার লেডি ডাফরিন হাসপাতালের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, আড়াই মাসের শিশুটিকে হাসপাতালে কর্তব্যরত নার্স ন’মাস বয়সের শিশুর জন্য নির্ধারিত হামের ওষুধ ও ভিটামিন-এ খাইয়ে দেন। এরপরই জ্বর আসে অবন্তিকার। শিশুর অবস্থার অবনতি হলে ডাফরিন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে জানায় শিশুর পরিবার। হাসপাতালের পরামর্শে শিশুটিকে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভরতি করা হয়। সেখানে আইসিইউ-তে রেখে চিকিৎসা করা হয় শিশুটির। ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছে সে। অবন্তিকার বাবা জানিয়েছেন, ‘‘দু’দিন ধরে মেয়েকে আইসিইউ-তে ভরতি রাখতে হয়। নার্সের গাফিলতিতে বড় বিপদ ঘটতেই পারত। আরও অনেক বেশি সতর্ক থাকা প্রয়োজন কর্ত্যরত নার্সদের। চাই না অন্য কারোর সঙ্গে এমন ঘটনা ঘটুক। ’’

অবন্তিকা সুস্থ হয়ে উঠতেই গোটা ঘটনাটি জানিয়ে মুচিপাড়া থানার দ্বারস্থ হন শিশুর পরিবার। এর পাশাপাশি নার্সিং সুপারিন্টেন্ডেন্টের দপ্তরে অভিযোগ জানায় ওই শিশুর পরিবার। সূত্রের খবর, শিশুর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতেই অভিযুক্ত নার্সকে বদলি করে দেওয়া হয়েছে আলিপুরদুয়ার হাসপাতালে। ভুল টিকা দেওয়ার প্রসঙ্গে হাসপাতালের এক আধিকারিক বলেছেন, ‘‘ঘটনা ঘটেছিল। তবে অসুস্থতা অন্য কারণে। সংশ্লিষ্ট নার্সকে বদলি করা হয়েছে।’’ তবে যে নার্সের গাফিলতির জেরে এই পরিস্থিতি তার কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া মেলেনি। একের পর এক হাসপাতালে ঘটে চলা ঘটনায় প্রশ্নের মুখে স্বাস্থ্য পরিষেবা।

[আরও পড়ুন: কাটমানি বিক্ষোভে পুলিশের সামনেই বোমাবাজি বীরভূমে, অভিযানে উদ্ধার প্রচুর বোমা]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং