BREAKING NEWS

১৫ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  বুধবার ২ ডিসেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘ভোটের কথা মাথায় রেখেই পুজোর আগে ভাষণ’, মোদিকে খোঁচা সৌগতর, পালটা জবাব সায়ন্তনের

Published by: Sayani Sen |    Posted: October 20, 2020 10:27 pm|    Updated: October 20, 2020 10:33 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দুর্গাপুজোর আগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির (Narendra Modi) ভাষণ নিয়ে রাজনৈতিক মহলে চলছে জোর তরজা। বাঙালি আবেগকে কাজে লাগিয়ে গেরুয়া শিবির ভোটবাক্সকে আরও মজবুত করতে চাইছে বলে অভিযোগ শাসকদল তৃণমূলের। যদিও সে অভিযোগ মানতে নারাজ বিজেপি নেতারা। ঊর্ধ্বমুখী করোনা (Coronavirus) গ্রাফের ফলেই প্রধানমন্ত্রী হিসাবে জনগণের উদ্দেশে বার্তা দিয়েছেন বলেই দাবি তাঁদের।

মঙ্গলবার সন্ধে থেকেই প্রধানমন্ত্রীর ভাষণ নিয়ে সৌগত রায় (Sougata Roy) এবং সায়ন্তন বসুর মধ্যে চলছে জোর তরজা। করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধির নেপথ্যে মোদিকেই কার্যত দায়ী করেছেন সৌগত রায়। খোঁচা দিয়ে তিনি বলেন, “সঠিক নীতি না নেওয়ায় করোনা বেড়েছে।” দুর্গাপুজোর আগে মোদির জাতির উদ্দেশে ভাষণকে রাজনৈতিক অভিসন্ধি হিসাবেই দেখছেন সৌগত রায়। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “২০১৪ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত তো মোদি বার্তা দেননি। ভোটের কথা মাথায় রেখেই পুজোর আগে বলেছেন।” করোনা ভ্যাকসিন তৈরির পর তা বিলির ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রীর সুপরিকল্পনা করা উচিত বলেও দাবি তাঁর। সৌগত রায় বলেন, “রাজ্যগুলি অর্থের অভাব সত্ত্বেও মোকাবিলা করেছে। ভ্যাকসিন বিলিতে যাতে কোনও সমস্যা না হয় তা নিশ্চিত করুন।”

[আরও পড়ুন: পটাশপুরে মৃত বিজেপি কর্মীর দ্বিতীয়বার ময়নাতদন্ত হচ্ছেই, নির্দেশ বহাল কলকাতা হাই কোর্টের]

তবে সৌগত রায়ের খোঁচা পালটা জবাব দিয়েছেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু (Sayantan Basu)। তিনি বলেন, “উৎসবের অতিরিক্ত উৎসাহ যেন দুঃখের কারণ না হয় সেকথা দেশবাসীকে মনে করিয়ে দিতেই বার্তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। দেশের প্রধানমন্ত্রী তাঁর কর্তব্য পালন করেছেন।” উল্লেখ্য, উৎসবের মরশুমে মঙ্গলবার জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। লকডাউন মিটে গেলেও ভাইরাস চলে যায়নি বলেই বার্তা দেন তিনি। এছাড়াও উৎসবের মরশুমে সতর্কভাবে দিন কাটানোরও পরামর্শ দেন প্রধানমন্ত্রী।

[আরও পড়ুন: কলকাতার পর কোথায় হবে দিন-রাতের পিংক টেস্ট? জানিয়ে দিলেন সৌরভ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement