৪ কার্তিক  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২২ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রেমে পড়লে মানুষ কীই না করতে পারে। নেটদুনিয়া ঘুরে বেড়াচ্ছে তারই এক অদ্ভুত নিদর্শন। অনেকেই প্রেমিকের ছবি নেকলেসের লকেটে রাখেন। অনেকে আবার ভালবাসার মানুষটির নামের অদ্যক্ষর ঝোলান নেকলেসে। কিন্তু তাই বলে প্রেমিকের বীর্য! সম্প্রতি এমনই একটি ঘটনা ঘটিয়েছেন মার্কিন মুলুকের এক যুবতী। শুধু কি তাই? সেই ছবি তিনি পোস্ট করেছেন সোশ্যাল সাইটেও। সেই ছবি এখন নেটিজেনদের নতুন আলোচনার বিষয়। যদিও টুইটার ইতিমধ্যেই ছবিটিকে ‘সেন্সেটিভ কন্টেন্ট’-এর আওতাভুক্ত করেছে। ফলে সহজে দেখা যাচ্ছে না ছবিটি।

[ আরও পড়ুন: আফগানিস্তানে রাষ্ট্রপতির জনসভায় আত্মঘাতী বিস্ফোরণ, মৃত কমপক্ষে ২৬ ]

বীর্যভরা লকেটের ছবিটি ওই যুবতী পোস্ট করেছিলেন গত মাসের গোড়ার দিকে। @cuntyspice নামে টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে পোস্ট করা হয়েছিল সেটি। টেক্সাসের ওই যুবতীর মতে, প্রেমিককে তিনি প্রচণ্ড ভালবাসেন। তাই তিনি সব সময়ই প্রেমিকের শরীরে একটি অংশ নিজের কাছে রাখতে চাইতেন। সেই থেকেই এই ভাবনা তাঁর মাথায় আসে। প্রেমিকের বীর্য একটি পাত্রে ভরে সেটি গলায় পরতে শুরু করেন তিনি। ভালবাসার চিহ্ন স্বরূপ সেই নেকলেসের ছবিও তিনি পোস্ট করেন সোশ্যাল মিডিয়াতেও।

[ আরও পড়ুন: সংখ্যালঘু বলেই খুন করা হয়েছে, অভিযোগ পাকিস্তানে মৃত হিন্দু যুবতীর পরিবারের ]

তারপর থেকে নেটদুনিয়ার চর্চার অন্যতম বিষয় হয়ে দাঁড়ায় এই স্পার্মের নেকলেস। অনেকে টেক্সাসের ওই যুবতির কাণ্ডকারখানার তীব্র নিন্দা করেছেন। বলেছেন, প্রেমিককে যদি অতটাই ভালবাসেন তিনি, তাহলে তাঁর ছবি দেওয়া লকেট পরতে পারতেন। নিজের পার্সেও রাখতে পারতেন প্রেমিকের ছবি। কিন্তু এ আবার কী কাণ্ড! শুক্রাণু দিয়ে তিনি কিনা লকেট তৈরি করলেন! তার ছবি আবার পোস্টও করলেন টুইটারে! গোটা ব্যাপারটাই অত্যন্ত ঘৃণ্য বলে মন্তব্য করেন তাঁরা। অনেকে আবার যুবতীর পাশে দাঁড়িয়েছেন। বলেছেন, এটি নিতান্তই ওই যুবতীর ব্যক্তিগত ব্যাপার। এর মধ্যে নাক না গলানোই ভাল। তবে সবথেকে বেশি চলছে হাসিঠাট্টা। নেটিজেনরা বিষয়টির মধ্যে হাসির খোরাক পেয়েছেন। যদিও এসব নিয়ে মোটেও মাথা ঘামাতে রাজি নন ওই যুবতী। তিনি ওই শুক্রাণুবন্দি নেকলেস নিয়ে বেজায় খুশি।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং