BREAKING NEWS

১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ১ ডিসেম্বর ২০২০ 

Advertisement

২৭ কোটি গ্রাহকের তথ‌্য ফাঁস, দায় ঝেড়ে ফেলতে মরিয়া ফেসবুক

Published by: Bishakha Pal |    Posted: December 21, 2019 8:54 am|    Updated: December 21, 2019 8:54 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের বড়সড় তথ‌্য ফাঁসের অভিযোগ উঠল ফেসবুকের বিরুদ্ধে। মার্কিন সংবাদমাধ‌্যমে অভিযোগ, ফেসবুক কর্তৃপক্ষ বিপুল অর্থের বিনিময়ে বিভিন্ন সংস্থাকে গোপনে ও প্রকাশ্যে নিজেদের গ্রাহকদের ব‌্যক্তিগত তথ‌্য বিক্রি করেছে। গ্রাহকদের জানানো দূরের কথা, ফেসবুক বেপরোয়াভাবেই এই কাজটা করেছে। আগেও তারা এই কাজ করেছিল।

যদিও ফেসবুক কর্তৃপক্ষ সব অভিযোগই অস্বীকার করে বলেছে। তবে গ্রাহকদের তথ‌্য যে হ‌্যাক হয়েছে, তা অস্বীকার করেনি তারা। সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, ফেসবুকের কোনও কর্মী এই ঘটনার জন‌্য দায়ী নয়। তথ‌্য চুরির ব‌্যাপারটা দুর্ঘটনামাত্র। এর জন্য ফেসবুকে দিকে আঙুল তোলা অনুচিত।

[ আরও পড়ুন: ওয়েবসাইটে আবেদন করলে এবার ঘরে বসেই বিনামূল্যে মিলবে গঙ্গাসাগরের পবিত্র জল ]

বিভিন্ন ওয়েবসাইটে প্রকাশিত খবর অনুয়ায়ী, ফেসবুকের ২৬ কোটি ৭০ লক্ষ গ্রাহকের ব‌্যক্তিগত ছবি, তথ‌্য, অনলাইন গতিবিধি, ইউজার আইডি, ফোন নম্বর ফাঁস হয়ে গিয়েছে। ফেসবুকের ডেটাবেস থেকেই এই সব তথ‌্য ফাঁস হয়েছে। এর আগে চলতি বছরেই চার কোটি নব্বই লক্ষ ইনস্টাগ্রাম ব‌্যবহারকারীর ছবি, তথ‌্যও ফাঁস হয়েছে। একইসঙ্গে ৪১ কোটি ৯০ লক্ষ ফেসবুক ব‌্যবহারকারীর যাবতীয় তথ‌্যও ফাঁস হয়েছিল। তখনও প্রযুক্তিগত ত্রুটি ও হ‌্যাকারদের উপর দোষ চাপিয়ে দায় সেরেছিলেন স্বয়ং মার্ক জুকেরবার্গ।

বেসরকারি সাইবার সিকিউরিটি সংস্থা কমপ‌্যারিটেক ও সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞ বব দিয়াচেনকো জানিয়েছেন, এই ঘটনাপ্রবাহ ও প্রবণতা চলতে থাকলে আগামিদিনে আরও বড় বিপদ অপেক্ষা করছে। ত্রুটিহীন ও নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা ব‌্যবস্থা নিতে ফেসবুক নিজের দায়বদ্ধতা পালন করছে না বলে স্পষ্ট জানিয়েছেন তিনি। হ‌্যাকাররা এই সব ফাঁস হওয়া তথ‌্য ডাউনলোড করে অসাধু ও বিপজ্জনক উদ্দেশ্যে কাজে লাগাচ্ছে। যে সব গ্রাহকের তথ‌্য ফাঁস হয়েছে তাঁরা কোন কোন দেশের নাগরিক, তা এখনও জানা যায়নি।

[ আরও পড়ুন: লক্ষ্মীবারে শুরু আমাজনের ফ্যাব ফোন ফেস্ট, দুর্দান্ত অফারে কিনুন এই ৫টি স্মার্টফোন ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement