BREAKING NEWS

১১ কার্তিক  ১৪২৭  বুধবার ২৮ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

পেটিএমের KYC আপডেটের নামে জালিয়াতি, ব্যাংক থেকে উধাও লক্ষাধিক টাকা

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: March 16, 2020 8:42 am|    Updated: March 16, 2020 8:42 am

An Images

অর্ণব আইচ: পেটিএমের(Paytm) KYC আপডেট করার নাম করে শহরে ফের একের পর এক জালিয়াতির অভিযোগ। কেউ বা খোয়ালেন ৯ হাজার টাকা কেউ লক্ষাধিক। এই অনলাইন ব্যাংক জালিয়াতির পিছনে জামতাড়ার গ্যাং রয়েছে বলেই প্রাথমিকভাবে মনে করছে তদন্তকারীরা। ইতিমধ্যেই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। 

পুলিশ জানিয়েছে, উত্তর কলকাতার টালা এলাকার অনন্তনাথ দেব লেনে এক গৃহবধূ অভিযোগ জানান, এক অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তি তাঁকে ফোন করে। সে নিজেকে পেটিএমের(Paytm) কর্মী বলে পরিচয় দেয়। বলে, ওই বধূর পেটিএমের কেওয়াইসি(KYC) আপডেট করা নেই। তাই তিনি আর পেটিএম থেকে লেনদেন করতে পারবেন না। পাশাপাশি, তাঁকে তাঁর ডেবিট কার্ড থেকে পেটিএমে(Paytm) এক টাকা পাঠাতেও বলেন। বিশ্বাস করে ডেবিট কার্ড থেকে পেটিএমে এক টাকা পাঠান ওই বধূ। কিছুক্ষণ পরই ব্যাংক থেকে তাঁকে মেসেজ পাঠিয়ে জানানো হয় যে, অ্যাকাউন্ট থেকে তুলে নেওয়া হয়েছে নয় হাজার টাকা। এই বিষয়ে তিনি টালা থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

[আরও পড়ুন: চরিত্র নিয়ে সন্দেহে মারধর, অভিমানে আত্মঘাতী মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী]

এদিকে, পাটুলির রায়পুরের এক বাসিন্দাও একই ধরনের অভিযোগ করেছেন। পাটুলি থানায় তাঁর করা অভিযোগ অনুযায়ী, এক ব্যক্তি তাঁকে ফোন করে পেটিএমের(Paytm) কেওয়াইসি আপডেট করার নাম করে ফোন করে। যেহেতু তাঁর দু’টি বেসরকারি ব্যাংকে অ্যাকাউন্ট রয়েছে, তাই তাঁকে ‘গুগল ক্রস’-এর মাধ্যমে এক টাকা করে পাঠাতে বলা হয়। কিছুক্ষণ পরই তিনি জানতে পারেন যে, তাঁর দু’টি  অ্যাকাউন্ট থেকে উধাও হয়ে গিয়েছে মোট ১ লাখ ২৩ হাজার টাকা। সার্ভে পার্ক এলাকার পি এম সরণির বাসিন্দা এক মহিলার অভিযোগ, একই পদ্ধতিতে তাঁর পেটিএম রিনিউ করার নাম করে ফোন করে ব্যাংক জালিয়াত। তাঁর রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট থেকে উধাও ৭৫ হাজার টাকা। যাতে শহরবাসী এই জালিয়াতদের শিকার না হন, তার জন্য লালবাজারের গোয়েন্দারা বারবার প্রচার করছেন। লালবাজারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে, এভাবে পেটিএম(Paytm) সংস্থা কোনও ফোন করে না। এই অভিযোগগুলির ভিত্তিতেও তদন্ত শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

[আরও পড়ুন: এক ছোঁয়াতেই হাতের মুঠোয় বই! স্মার্টফোন অ্যাপে আস্ত কলেজ লাইব্রেরি]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement